• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • শুক্রবার, ১০ এপ্রিল ২০২০, ২৬ চৈত্র ১৪২৬
“প্রেমের বেদনা থাকে সারাটি জীবন”

“প্রেমের বেদনা থাকে সারাটি জীবন”

কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর ১৮৬১ সালের ৭ মে ভারতের কলকাতার জোড়াসাঁকো ঠাকুরবাড়িতে জন্মগ্রহণ করেন। একাধারে তিনি ছিলেন অগ্রণী বাঙালি কবি, ঔপন্যাসিক, সংগীতস্রষ্টা, নাট্যকার, চিত্রকর, ছোটগল্পকার, প্রাবন্ধিক, অভিনেতা, কণ্ঠশিল্পী ও দার্শনিক।

বিস্তারিত
“স্মরণ রেখো যেন পুনরায় অনুতপ্ত হতে না হয়”

“স্মরণ রেখো যেন পুনরায় অনুতপ্ত হতে না হয়”

শ্রী শ্রী ঠাকুর অনুকূলচন্দ্র সনাতন ধর্মের একজন আধ্যাত্মিক পুরুষ। ১৮৮৮ সালের ১৪ই সেপ্টেম্বর ব্রিটিশ ভারতের বঙ্গ প্রদেশের পাবনা জেলার হিমায়তপুরে জন্মগ্রহণ করেন, যা বর্তমানে বাংলাদেশের অন্তর্গত। শ্রী শ্রী ঠাকুর অনুকূলচন্দ্র সৎসঙ্গ নামক সংগঠনের প্রবর্তক। স্বাবলম্বন ও পরনির্ভরশীলতা ত্যাগের দীক্ষা অনুকূলচন্দ্রের সৎসঙ্গ আশ্রমের আদর্শ।

বিস্তারিত
“নিজের অজ্ঞতা সম্বন্ধে অজ্ঞানতার মতো  অজ্ঞান আর তো কিছু নেই”

“নিজের অজ্ঞতা সম্বন্ধে অজ্ঞানতার মতো অজ্ঞান আর তো কিছু নেই”

কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর ১৮৬১ সালের ৭ মে ভারতের কলকাতার জোড়াসাঁকো ঠাকুরবাড়িতে জন্মগ্রহণ করেন। একাধারে তিনি ছিলেন অগ্রণী বাঙালি কবি, ঔপন্যাসিক, সংগীতস্রষ্টা, নাট্যকার, চিত্রকর, ছোটগল্পকার, প্রাবন্ধিক, অভিনেতা, কণ্ঠশিল্পী ও দার্শনিক।

বিস্তারিত
“দুর্বলের পক্ষে সবলের  অনুকরণ ভয়াবহ”

“দুর্বলের পক্ষে সবলের অনুকরণ ভয়াবহ”

দ্বিজেন্দ্রনাথ ঠাকুর ১৮৪০ সালের ১১ মার্চ কলকাতার জোড়াসাঁকো ঠাকুরবাড়িতে জন্মগ্রহণ করেন। একাধারে তিনি কবি, দার্শনিক, গণিতজ্ঞ, বাংলা শর্টহ্যান্ড ও স্বরলিপির উদ্ভাবক, চিত্রশিল্পী ও স্বদেশপ্রেমিক। দ্বিজেন্দ্রনাথের ছদ্মনাম ‘বঙ্গের রঙ্গ দর্শক’ ও ‘দেশের ব্যথার ব্যথী’।

বিস্তারিত
আইন যেখানে ন্যায়ের শাসক, সত্য  বলিলে বন্দী...

আইন যেখানে ন্যায়ের শাসক, সত্য বলিলে বন্দী...

বাংলাদেশের জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম। ১৮৯৯ সালের ২৪ মে পশ্চিমবঙ্গের বর্ধমান জেলার চুরুলিয়া গ্রামে তিনি জন্মগ্রহণ করেন। তিনি বিদ্রোহী কবি নামে খ্যাত। ১৯৭৪ সালের ৯ ডিসেম্বর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কবিকে সম্মানসূচক ডি.লিট উপাধিতে ভূষিত করে।

বিস্তারিত
“স্বপ্ন না দেখলে  কাজ করা যায় না”

“স্বপ্ন না দেখলে কাজ করা যায় না”

এ পি জে আব্দুল কালাম ১৯৩১ সালের ১৫ অক্টোবর তামিলনাডুর রামেশ্বরমে এক দরিদ্র পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। পৃথিবীতে যে কয়জন ক্ষণজন্মা মহাপুরুষ সাফল্যের চূড়ান্ত শিখরে পৌঁছেছিলেন, তিনি তাদের একজন।

বিস্তারিত
“নকল করিলে নকলের বাইরে কিছুই দেখা যায় না”

“নকল করিলে নকলের বাইরে কিছুই দেখা যায় না”

কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর ৭ মে ১৮৬১ সালে ভারতের কলকাতার জোড়াসাঁকো ঠাকুরবাড়িতে জন্মগ্রহণ করেন। একাধারে তিনি ছিলেন অগ্রণী বাঙালি কবি, ঔপন্যাসিক, সংগীতস্রষ্টা, নাট্যকার, চিত্রকর, ছোটগল্পকার, প্রাবন্ধিক, অভিনেতা, কণ্ঠশিল্পী ও দার্শনিক। তাঁকে বাংলা ভাষার সর্বশ্রেষ্ঠ সাহিত্যিক মনে করা হয়।

বিস্তারিত
“সমস্যা আছে বলেই  সাফল্যে এতো আনন্দ”

“সমস্যা আছে বলেই সাফল্যে এতো আনন্দ”

পৃথিবীতে যে কয়জন ক্ষণজন্মা মহাপুরুষ সাফল্যের চূড়ান্ত শিখরে পৌঁছেছিলেন, তাদের একজন এ পি জে আব্দুল কালাম। ১৯৩১ সালের ১৫ অক্টোবর তামিলনাডুর রামেশ্বরমে এক দরিদ্র পরিবারে তার জন্ম। তার বাবা ডিঙ্গি নৌকার কাজ করতেন।

বিস্তারিত
অধ্যবসায়ের মাধ্যমে অসাধ্যকে সাধ্য করা যায়

অধ্যবসায়ের মাধ্যমে অসাধ্যকে সাধ্য করা যায়

বাংলা গদ্যের প্রথম সার্থক রূপকার ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগর। তিনি ১৮২০ খ্রিস্টাব্দের ২৬ সেপ্টেম্বর বর্তমান পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার বীরসিংহ গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তার প্রকৃত নাম ঈশ্বরচন্দ্র বন্দ্যোপাধ্যায়। সংস্কৃত ভাষা ও সাহিত্যে অগাধ পাণ্ডিত্যের জন্য তিনি বিদ্যাসাগর উপাধি লাভ করেন।

বিস্তারিত
‍“যাহা যত গভীর, তাহা ততই অন্ধকার”

‍“যাহা যত গভীর, তাহা ততই অন্ধকার”

বাংলা ভাষার সবচেয়ে জনপ্রিয় কথাসাহিত্যিক, লেখক, ঔপন্যাসিক ও গল্পকার শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়। তিনি ১৮৭৬ সালের ১৫ সেপ্টেম্বর হুগলি জেলার দেবানন্দপুরে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর জনপ্রিয় কিছু বই হলো- শ্রীকান্ত, চরিত্রহীন, গৃহদাহ, দেনা-পাওনা,পথের দাবী ইত্যাদি।

বিস্তারিত