• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • রোববার, ০৫ জুলাই ২০২০, ২১ আষাঢ় ১৪২৭

লক্ষ্মীপুরে পরকীয়ার জেরে শাশুড়িকে হত্যা: পুত্রবধূসহ চার জনের মৃত্যুদণ্ড

লক্ষ্মীপুরে পরকীয়ার জেরে শাশুড়িকে হত্যা: পুত্রবধূসহ চার জনের মৃত্যুদণ্ড

জেলা প্রতিনিধি২৬ নভেম্বর ২০১৯, ০২:৫৪পিএম, ঢাকা-বাংলাদেশ।

লক্ষ্মীপুরে পরকীয়ায় বাধা দেয়ায় শাশুড়ি জাকিয়া বেগমকে হত্যার দায়ে পুত্রবধূ শারমিন আক্তারসহ চারজনের মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

মঙ্গলবার দুপুরে জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মো. শাহেনূর এ রায় দেন। রায় ঘোষণার সময় আসামিরা আদালতে ছিলেন না।

দণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন- জাকিয়ার পুত্র বধূ নোয়াখালী জেলার সেনবাগ উপজেলার বসন্তপুর এলাকার সেলিম মিয়ার মেয়ে শারমিন আক্তার (২৭), লক্ষ্মীপুর জেলার সদর উপজেলার আন্ধার মানিক গ্রামের মোহাম্মদ হোসেনের ছেলে জসিম উদ্দিন (৩০), লক্ষ্মীপুর জেলার কালিবৃত্তি থানার চন্দ্রগঞ্জ এলাকার আবুল কালামের ছেলে জামাল হোসেন (২৮) ও চাঁদপুর জেলার বাখরপুর উপজেলার শাহজাহান খানের ছেলে নাজিম উদ্দিন (৩০)। আসামিরা সবাই পলাতক রয়েছেন।

আদালতের সরকারি কৌঁসুলি (পিপি) মো. জসিম উদ্দিন বলেন, সকল প্রমাণ ও স্বাক্ষ্যগ্রহণে আসামিরা দোষী প্রমাণিত হওয়ার আদালত তাদের মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন।

মামলার অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, জাকিয়া বেগম সদর উপজেলার তেওয়ারীগঞ্জ ইউনিয়নের ২ নম্বর ওয়ার্ডের ধর্মপুর গ্রামের প্রবাসী রুহুল আমিনের স্ত্রী। জাকিয়ার ছোট ছেলে আবুল বাশার ঢাকায় ইলেক্ট্রিকের কাজ করেন। বাশারের অনুপস্থিতে তার স্ত্রী শারমিন জামালের সঙ্গে পরকীয়া প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলেন। বিষয়টি জানতে পেরে জাকিয়া পুত্রবধূকে পরকীয়া সম্পর্কটি বিচ্ছিন্ন করতে বলেন। এতে তাদের দুজনের মধ্যে বিরোধ দেখা দেয়।

২০১৬ সালের ১৪ জুলাই মধ্যরাতে বাড়ির কলাপসিবল গেট খুলে শারমিন অপর আসামিদের নিজের কক্ষে নিয়ে যান। তাদের কথা শুনে ঘুম থেকে উঠে শারমিনের কক্ষে গেলে জাকিয়া আসামিদের দেখতে পান। এসময় আসামিরা ক্ষিপ্ত হয়ে জাকিয়াকে শ্বাসরোধে হত্যা করে পালিয়ে যায়।

পরদিন নিহতের দেবর খোরশেদ আলম বাদী হয়ে চারজনের বিরুদ্ধে সদর মডেল থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন। ওই দিনই আসামি জসিম উদ্দিনকে নতুন তেওয়ারীগঞ্জ গ্রামের শ্বশুরবাড়ি থেকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এরপর থেকে আসামিরা জামিন নিয়ে পলাতক রয়েছেন।

তদন্ত শেষে লক্ষ্মীপুর সদর থানার তৎকালীন এসআই মোরশেদ আলম ২০১৭ সালের ২ জানুয়ারি অভিযোগপত্র জমা দিলে এ মামলার বিচারকাজ শুরু করে আদালত। দীর্ঘ সাক্ষ্যগ্রহণ ও শুনানি শেষে আদালত তাদের বিরুদ্ধে এ রায় দেন।

 

টাইমস/এইচইউ

করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছেই, আরও ২৯ জনের মৃত্যু

করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছেই, আরও ২৯ জনের মৃত্যু

দেশে প্রতিদিনই বাড়ছে করোনায় আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। গত ২৪

করোনায় শারীরিক দূরত্বের ফলে বাড়ছে মানসিক চাপ

করোনায় শারীরিক দূরত্বের ফলে বাড়ছে মানসিক চাপ

দিন যত যাচ্ছে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের প্রকোপ ততোই বাড়ছে। যার কোনো

করোনাকালে ইমিউনিটি বাড়াতে দূরে থাকুক চিনি

করোনাকালে ইমিউনিটি বাড়াতে দূরে থাকুক চিনি

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ এড়াতে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোর কথা বার বার

স্বাস্থ্য

মাস্কে অস্বস্তি এড়ানোর কৌশল

মাস্কে অস্বস্তি এড়ানোর কৌশল

বিশ্বের বহু দেশেই করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকানোর একটি জনপ্রিয় ব্যবস্থা হচ্ছে মাস্ক ব্যবহার। বিশেষ করে চীনে, যেখান থেকে শুরু হয়েছে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার ঘটনা, সেখানেও মানুষ বায়ুর দূষণের হাত থেকে বাঁচতে হরহামেশা নাক আর মুখ ঢাকা মুখোশ পরে ঘুরে বেড়ায়। কিন্তু, অনেকক্ষণ ধরে মাস্ক ব্যবহার করলে কিংবা একাধিক মাস্ক একসঙ্গে একটির ওপর আরেকটি রেখে ব্যবহার করলে অক্সিজেনের ঘাটতি হতে পারে।

স্বাস্থ্য

বাংলাদেশের করোনা রোগীদের ওপর টিকার পরীক্ষা চালাতে চায় চীন, ইতিবাচক সারা সরকারের

বাংলাদেশের করোনা রোগীদের ওপর টিকার পরীক্ষা চালাতে চায় চীন, ইতিবাচক সারা সরকারের

চীনের রাষ্ট্রীয় ওষুধ প্রস্তুতকারক কোম্পানি সিনোভ্যাক বায়োটেক লিমিটেডের তৈরি করোনাভাইরাস ঠেকাতে সম্ভাব্য একটি ভ্যাকসিন ব্রাজিলে ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালের অনুমতি পেয়েছে। শুক্রবার ব্রাজিলের স্বাস্থ্য নিয়ন্ত্রক কর্তৃপক্ষ আনভিসা এ অনুমোদন দেয়। ব্রাজিলের সাও পাওলো রাজ্যের সরকারি গবেষণা কেন্দ্র ইন্সটিটিউট বুটান্টানের নেতৃত্বে ভ্যাকসিনটির পরীক্ষা হবে।

স্বাস্থ্য

করোনা থাকবে, সবাইকে মানিয়ে চলতে হবে

করোনা থাকবে, সবাইকে মানিয়ে চলতে হবে

বিশ্বে করোনাভাইরাস মহামারীর দ্বিতীয় ঢেউ এখনও শুরু হয়নি; কারণ প্রথম ধাক্কাই এখনও কাটেনি। এ পর্যন্ত এক কোটির বেশি মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। ভাইরাসটি ছড়িয়েছে বিশ্বের প্রায় সবখানেই। চীন, তাইওয়ান, ভিয়েতনামের মতো কিছু দেশ মহামারী নিয়ন্ত্রণে এনেছে। এখন তাণ্ডব চলছে লাতিন আমেরিকা, দক্ষিণ এশিয়ায়। যুক্তরাষ্ট্রের মতো আরও কিছু দেশ নিয়ন্ত্রণ হারানোর পথে রয়েছে। আফ্রিকার দেশগুলো রয়েছে মহামারীর প্রাথমিক পর্যায়ে।

জাতীয়

বিদ্যুতের ভুতুড়ে বিল, ঢাকার চার প্রকৌশলী বরখাস্ত

বিদ্যুতের ভুতুড়ে বিল, ঢাকার চার প্রকৌশলী বরখাস্ত

ভুতুড়ে বিদ্যুৎ বিল করার অভিযোগে ঢাকা পাওয়ার ডিস্টিবিউশন কোম্পানি লিমিটেডের (ডিপিডিএস) ৪ প্রকৌশলীকে বরখাস্ত করা হয়েছে। এ ছাড়া আরও ৩৬ প্রকৌশলীকে শোকজ করা হয়েছে।

জাতীয়

করোনায় স্থগিত যশোর-বগুড়ার উপনির্বাচন ১৪ জুলাই

করোনায় স্থগিত যশোর-বগুড়ার উপনির্বাচন ১৪ জুলাই

আগামী ১৪ জুলাই যশোর-৬ ও বগুড়া-১ আসনের উপনির্বাচনের ভোটগ্রহণের তারিখ নির্ধারণ করেছে নির্বাচন কমিশন। শনিবার বিকালে কমিশন সভায় এই দুই আসনে উপনির্বাচনের ভোটগ্রহণের সিদ্ধান্ত হয়েছে বলে জানিয়েছেন ইসির জ্যেষ্ঠ সচিব মো. আলমগীর।

স্বাস্থ্য

হাই ব্লাড প্রেসারে ভয়াবহ হতে পারে কোভিড সংক্রমণ

হাই ব্লাড প্রেসারে ভয়াবহ হতে পারে কোভিড সংক্রমণ

দীর্ঘদিন ধরে রক্তচাপজনিত অসুখ বা হাই ব্লাড প্রেসারের সমস্যায় ভুগছেন, এসব ব্যক্তির ক্ষেত্রে লিঙ্গ, বয়স নির্বিশেষে সংক্রমণের ঝুঁকি অনেকটাই বেশি। তাদের ক্ষেত্রে ঝুঁকি কেন বেশি, এই নিয়ে ক্লিনিক্যাল মেডিসিন জার্নালের রিসার্চ বলছে, উচ্চ রক্তচাপ মানেই রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম। তাই ভাইরাস যুদ্ধে জয়ের সম্ভাবনাও কম।