• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • সোমবার, ১৮ নভেম্বর ২০১৯, ৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

আইন আদালত

খুলনায় হত্যা দায়ে তিনজনের যাবজ্জীবন

খুলনায় হত্যা দায়ে তিনজনের যাবজ্জীবন

খুলনায় সেতু ডায়াগনস্টিকের ম্যানেজার ইউনুস আলীকে হত্যা ও অর্থ লুটের দায়ে তিনজনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। বৃহস্পতিবার পুরে খুলনার অতিরিক্ত মহানগর দায়রা জজ আদালতের বিচারক রোজিনা আক্তার এ রায় দেন। একই সঙ্গে আসামিদের ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে তিন মাসের কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। দণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন- মো. সোহেল শেখ, শেখ রুবায়েত হোসেন ওরফে রুবেল ও মো. সাব্বির হোসেন তপু। এছাড়া হত্যাকাণ্ডের আলামত ধ্বংসের

ঠাকুরগাঁওয়ে ভুয়া প্রকল্পে চাল আত্মসাত, দুদকের হাতে ধরা ৬ কর্মকর্তা

ঠাকুরগাঁওয়ে ভুয়া প্রকল্পে চাল আত্মসাত, দুদকের হাতে ধরা ৬ কর্মকর্তা

আটককৃতরা পরস্পর যোগসাজশ ও জালিয়াতিমূলকভাবে কাগজপত্র তৈরি করে অসৎ উদ্দেশে ঠাকুরগাঁও জেলার মাহালিয়াহাট বাজার জামে মসজিদ, মাধবপুর উন্নয়ন যুব সংঘ, মাধবপুর ফোরকানিয়া মাদ্রাসা, মাধবপুর রামকৃষ্ণ মন্দির ও ব্যারিস্টার জামে মসজিদের নামে ৫টি প্রকল্পের ৬ মেট্রিক টন চাল আত্মসাৎ করেন। যার আনুমানিক মূল্য ২ লাখ ৩৪ হাজার ৬০৮ টাকা।

বিপুল সম্পদের মালিক উপজেলা আ.লীগ নেতা, দুদকে অভিযোগ

বিপুল সম্পদের মালিক উপজেলা আ.লীগ নেতা, দুদকে অভিযোগ

তিনি অবৈধ পথে উপার্জিত টাকায় সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার বাঁধনপাড়া এলাকায় বহুতল বিশিষ্ট ভবনের মালিক হয়েছেন। যার বাজার মূল্য ৮ কোটি টাকা। অমল কর কানাডাতেও বাড়ি ক্রয় করেছেন। তিনি তার অবৈধ অর্থ কানাডাতে পাচার করেছেন। তার স্ত্রী ও সন্তান বর্তমানে কানাডাতে বসবাস করছেন। গেল অক্টোবর মাসে অমল কর কানাডায় তার পরিবারের সঙ্গে ছিলেন।

আবরার হত্যার বিচার হবে দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে: আইনমন্ত্রী

আবরার হত্যার বিচার হবে দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে: আইনমন্ত্রী

আইনমন্ত্রী বলেন, যে কারণেই এই হত্যাকাণ্ড ঘটানো হোক না কেন এটা হত্যাকাণ্ড। এরকম হত্যাকাণ্ড ঘটানো উচিত নয়। সমাজ এটাকে মেনে নেবে না, আমরা এটাকে মেনে নেবো না। এটার উচিত বিচার হতে হবে, শুধু উচিত বিচার এ কারণে না যে একটা হত্যাকাণ্ড হয়ে গেছে। এটার মতো আর কোনোদিন যাতে পুনরাবৃত্তি না ঘটে সেটা আমাদের নিশ্চিত করতে হবে।

এসপি হারুনের দুর্নীতির বিষয়ে হাইকোর্টে রিট

এসপি হারুনের দুর্নীতির বিষয়ে হাইকোর্টে রিট

রিটে এ পুলিশ সুপারের বিরুদ্ধে ওঠা দুর্নীতির অভিযোগ ও ক্ষমতার অপব্যবহারের তদন্তের নির্দেশনা চাওয়া হয়েছে। বিভিন্ন পত্রিকায় প্রকাশিত এসপি হারুনের ক্ষমতার অপব্যবহার ও দুর্নীতি সংক্রান্ত প্রতিবেদন সংযুক্ত করে এ রিট দায়ের করা হয়।

তুরিনের অভিযোগ: ‘আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ দেওয়া হয়নি’

তুরিনের অভিযোগ: ‘আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ দেওয়া হয়নি’

তুরিন আফরোজ বলেন, ‘আমাকে কোনো তদন্তের ভেতর দিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়নি, আমাকে কেউ কিছু জিজ্ঞাসাও করেনি, কোনো কিছুই করা হয়নি। তো এক বছর চার-পাঁচ মাস পরে হঠাৎ করে...তদন্তে তো আত্মপক্ষ সমর্থনেরও একটি জায়গা থাকে। কোনো তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে কী না, সেটিও আমি জানি না’।