• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • বুধবার, ০১ এপ্রিল ২০২০, ১৮ চৈত্র ১৪২৬

দই খেলে দূর হবে পেটের ব্যথাসহ নানা সমস্যা

দই খেলে দূর হবে পেটের ব্যথাসহ নানা সমস্যা

ফিচার ডেস্ক২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ০৯:৩৫এএম, ঢাকা-বাংলাদেশ।

দই আমাদের অতিপরিচিত ও প্রিয় একটি খাবার। আমাদের মধ্যে বেশিরভাগ লোকই দই খেতে পছন্দ করেন। এটি যে কেবল স্বাদেই অসাধারণ তা কিন্তু নয়, হজমে সহায়তা করাসহ ত্বককে সুস্থ রাখতে দইয়ের ভূমিকাও অতুলনীয়।

মশলাদার খাবারের পর দই খাওয়ার রীতি আমাদের সমাজে এখনো অনেক জায়গায় প্রচলিত রয়েছে। এটি কিন্তু এমনি এমনি সৃষ্টি কোনো রীতি নয়, বরং এর পেছনে রয়েছে বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যা। একটি নতুন গবেষণায় দেখা গেছে যে, দই পেট ব্যথাসহ নানা রকমের হজমজনিত সমস্যা দূর করতে সহায়তা করতে পারে। তাই ভারী খাবারের পর দই খাওয়া অত্যন্ত স্বাস্থ্য সম্মত।

প্রোবায়োটিকস ও অ্যান্টিমিক্রোবিয়াল প্রোটিন জার্নালে প্রকাশিত এই গবেষণায় বলা হচ্ছে, গরুর খাঁটি দুধের তৈরি দইতে একটি বিশেষ প্রজাতির ব্যাকটেরিয়া রয়েছে, যা পেটের ব্যথার জন্য দায়ী বিষাক্ত আফলাটক্সিন বি-১ এর বিরুদ্ধে লড়াই করতে সহায়ক।

আফলাটক্সিন অনেক সময় গম ও বাদামের মতো খাবারে সংক্রামিত হতে পারে। এই আক্রান্ত খাবারগুলি খেলে আমাদের স্বাস্থ্যের উপর নেতিবাচক প্রভাব পড়তে পারে, ফলে পাকস্থলীতে হালকা ব্যথা থেকে শুরু করে ক্যান্সারের ঝুঁকি বাড়ে। আফলাটোসিন বি-১ আসলে খাদ্যে বিষক্রিয়া বা ফুড পয়জনিংয়ের অন্যতম সাধারণ কারণ।

দইয়ে বিদ্যমান বিভিন্ন ব্যাকটেরিয়া ফুড পয়জনিংয়ের জন্য দায়ী আফলাটোসিন বি-১ এর বিরুদ্ধে কার্যকর। আফলাটোসিনের বিনাশের মধ্য দিয়ে এটি আমাদের ফুড পয়জনিং ও অন্যান্য হজমজনিত সমস্যা থেকে দূরে রাখে।

দই খাওয়ার অন্যান্য উপকারিতা
হজম সমস্যা ও পেটে ব্যথা দূর করা ছাড়াও দই নানাভাবে আমাদের স্বাস্থ্যের পক্ষে ইতিবাচক ভূমিকা পালন করে থাকে। এর মধ্যে রয়েছে-

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা উন্নত করে
ভালো ব্যাকটেরিয়ার উপস্থিতি আপনার সামগ্রিক স্বাস্থ্যকে ভালো রাখতে এবং দিনের বেলা বায়ুবাহিত রোগের বিরুদ্ধে একটি শক্তিশালী প্রতিরোধ ব্যবস্থা তৈরি করতে সহায়তা করে।

শক্তিশালী হাড় ও দাঁত
ক্যালসিয়াম ও ফসফরাস সমৃদ্ধ দই শক্তিশালী হাড় এবং দাঁত বিকাশে সহায়তা করে।

ওজন কমাতে সহায়তা করে
দই আমাদের দেহে স্থূলত্ব এবং উচ্চ রক্তচাপের জন্য দায়ী করটিসোল জমতে বাধা দেয়। প্রতিদিন দই খেলে তা আপনাকে ওজন কমাতে সহায়তা করবে।

স্বাস্থ্যকর ও উজ্জ্বল ত্বকের জন্য
দইতে অ্যাসিডিক যৌগ থাকে, যা ত্বকের বিভিন্ন সমস্যার সঙ্গে লড়াই করতে অ্যান্টিব্যাকটিরিয়াল ও অ্যান্টিফাঙ্গাল হিসেবে কাজ করতে পারে। কিছুটা চুনের রসের সঙ্গে দই মিশিয়ে দশ মিনিটের জন্য আপনার মুখে লাগান। হালকা গরম পানি দিয়ে পরে ধুয়ে ফেলুন।

ত্বকের কুঁচকে যাওয়া প্রতিরোধ করে
দইয়ে বিদ্যমান অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট ত্বকের যৌবন ধরে রাখতে এবং অকালে কুচকে যাওয়া হতে ত্বককে রক্ষা করতে সহায়তা করে।

দাগ দূর করে
দই কোমল উপায়ে ত্বককে এক্সফোলাইটেড করতে সহায়তা করে। যদি আপনার মুখে দাগ থাকে এবং আপনি যদি প্রাকৃতিকভাবে চিকিৎসা করতে চান, তবে দই আপনার প্রাকৃতিক প্রতিকার হতে পারে।

খুশকি দূর করে
অ্যান্টি-ফাঙ্গাল বৈশিষ্ট্যযুক্ত দই খুশকি দূর করার জন্য আপনার প্রাকৃতিক প্রতিকার হতে পারে। তথ্যসূত্র: ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস

 

টাইমস/এনজে/জিএস

করোনায় দেশে আরও একজনের মৃত্যু, নতুন আক্রান্ত ৩   

করোনায় দেশে আরও একজনের মৃত্যু, নতুন আক্রান্ত ৩  

দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরও একজনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে

করোনা ধারণার চেয়েও ভয়ঙ্কর : নিউ ইয়র্ক গভর্নর

করোনা ধারণার চেয়েও ভয়ঙ্কর : নিউ ইয়র্ক গভর্নর

যুক্তরাষ্ট্রে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ কেন্দ্রস্থল নিউ ইয়র্ক। মঙ্গলবার অঙ্গরাজ্যটির গভর্নর অ্যান্ড্রু

কোভিড-১৯ এর চিকিৎসা হবে রোগটি থেকে সেরে ওঠা ব্যক্তির রক্তে

কোভিড-১৯ এর চিকিৎসা হবে রোগটি থেকে সেরে ওঠা ব্যক্তির রক্তে

করোনাভাইরাস সংক্রমিত হবার পর যারা সুস্থ হয়ে উঠেছেন, তাদের রক্তের

জাতীয়

সাইকেল আরোহীকে চাপা দিয়ে পালানোর সময় পথচারীকেও চাপা, নিহত ২

সাইকেল আরোহীকে চাপা দিয়ে পালানোর সময় পথচারীকেও চাপা, নিহত ২

ময়মনসিংহের নান্দাইলে বেপরোয়া গতির একটি ট্রাকের চাপায় দুইজনের মৃত্যু হয়েছে। বুধবার সকালে পৌরসদরের ব্র্যাক অফিসের সামনে ময়মনসিংহ-কিশোরগঞ্জ মহাসড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

বিনোদন

এবার অসচ্ছল শিল্পীদের পাশে দাঁড়ালেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

এবার অসচ্ছল শিল্পীদের পাশে দাঁড়ালেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের কারণে অচল বাংলাদেশ। এমনকি ভেঙে পড়েছে চলচ্চিত্র অঙ্গণও। এই মুহূর্তে ভাইরাসটি মোকাবিলায় সবাইকে হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকতে বলা হচ্ছে সরকারের পক্ষ থেকে। তাই চলচ্চিত্রের অসচ্ছল শিল্পীরা এখন কষ্টে দিন যাপন করছেন।

উক্তি প্রতিদিন

“ক্ষুধাতুর শিশু চায় না স্বরাজ, চায় দুটো ভাত একটু নুন”

“ক্ষুধাতুর শিশু চায় না স্বরাজ, চায় দুটো ভাত একটু নুন”

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম। ১৮৯৯ সালের ২৪ মে পশ্চিমবঙ্গের বর্ধমান জেলার চুরুলিয়া গ্রামে তিনি জন্মগ্রহণ করেন। তিনি বিদ্রোহী কবি নামে খ্যাত। ১৯৭৪ সালের ৯ ডিসেম্বর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কবিকে সম্মানসূচক ডি.লিট উপাধিতে ভূষিত করে। ১৯৭৬ সালের জানুয়ারি মাসে নজরুলকে বাংলাদেশ সরকার নাগরিকত্ব প্রদান করে। একই বছরে তাকে একুশে পদকে ভূষিত করা হয়।

মতামত

করোনা কি বিশ্বজুড়ে শ্রমিক শ্রেণীকে বিদ্রোহী করে তুলবে?

করোনা কি বিশ্বজুড়ে শ্রমিক শ্রেণীকে বিদ্রোহী করে তুলবে?

করোনাভাইরাসের মহামারী ছড়িয়ে পড়ার ফলে ইতিমধ্যে গৃহবন্দী হয়ে পড়েছেন বিশ্বের মোট জনসংখ্যার প্রায় দুই পঞ্চমাংশ, বুধবার পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় সাড়ে আট লাখ। এই পরিস্থিতিতে সব থেকে বেশি ঝুঁকিতে আমাদের অর্থনীতির মূল চালিকা শক্তি; বিশ্বের আপামর শ্রমিক শ্রেণী, খেটে খাওয়া দিনমজুর আর স্বল্প আয়ের লোকজন। দেশে দেশে কল কারখানাগুলি বন্ধ হয়ে পড়ছে, খেটে খাওয়া মানুষের আয়ের পথ রুদ্ধ হয়ে যাচ্ছে। রাষ্ট্র কর্তৃক ঘোষিত গৃহবন্দীর ফলে ঘরে আটকে থাকতে হচ্ছে দিন এনে দিন খাওয়া এসব লোকের।

জাতীয়

ছুটি ৯ এপ্রিল পর্যন্ত বাড়বে: প্রধানমন্ত্রী

ছুটি ৯ এপ্রিল পর্যন্ত বাড়বে: প্রধানমন্ত্রী

মরণঘাতী করোনাভাইরাসের সংক্রমণ পরিপূর্ণভাবে ঠেকাতে সব ধরণের ছুটি (সরকারি-বেসরকারি) আরও বাড়ানো হবে বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সেক্ষেত্রে আগামী ৯ তারিখ পর্যন্ত ছুটি বাড়বে বলে জানিয়েছেন তিনি।

বিনোদন

সুরে সুরে করোনা প্রতিরোধের নিয়ম শোনাবেন মমতাজ

সুরে সুরে করোনা প্রতিরোধের নিয়ম শোনাবেন মমতাজ

কণ্ঠশিল্পী ও সংসদ সদস্য মমতাজ বেগম। এবার করোনাভাইরাস প্রতিরোধে ডাক দিলেন তিনি। ব্র্যাকের উদ্যোগে করোনাভাইরাস প্রতিরোধে সচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে গানটি গেয়েছেন এই শিল্পী।