• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • রোববার, ২১ এপ্রিল ২০১৯, ৮ বৈশাখ ১৪২৬

নুসরাতের পক্ষে প্রথম রাস্তায় নেমে এসেছিল যারা

নুসরাতের পক্ষে প্রথম রাস্তায় নেমে এসেছিল যারা

সেন্ট্রাল ডেস্ক১৩ এপ্রিল ২০১৯, ০১:০৬পিএম, ঢাকা-বাংলাদেশ।

ফেনীর সোনাগাজীর মাদ্রাসাছাত্রী যৌন নিপীড়নের ঘটনার পর এর পক্ষে-বিপক্ষে মিছিল, মানববন্ধন হয়েছিল। স্থানীয় একজন স্কুল শিক্ষিকা বিবিসিকে জানিয়েছেন, নুসরাত রাফির ওপর যৌন নিপীড়নের ঘটনার পর সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ এ এস এম সিরাজ উদ দৌলার বিরুদ্ধে কয়েকশ ছাত্রীকে নিয়ে প্রথম প্রতিবাদ মিছিলটি তারাই বের করেছিলেন।

সোনাগাজী গার্লস পাইলট হাইস্কুলের শিক্ষিকা বীথি রাণী গুহ বলছেন, এই ঘটনায় সারাদেশের মতো সোনাগাজীর মানুষও ছিলেন বিক্ষুব্ধ, কিন্তু স্থানীয় কিছু প্রভাবশালীর ভয়-ভীতি-হুমকির মুখে হয়তো অনেকে সেভাবে সোচ্চার হতে পারেননি।

বাংলাদেশের ফেনীতে মাদ্রাসা ছাত্রী নুসরাত জাহান রাফির ওপর যৌন নিপীড়নের এবং তাকে কেরোসিন ঢেলে আগুনে পুড়িয়ে দেয়ার পরও কেন স্থানীয়ভাবে এর কোনো প্রতিবাদ হয়নি, তা নিয়ে আলোচনা চলছে ঘটনার পর থেকেই।

তবে শিক্ষিকা বীথি রাণী গুহ বলছেন, ‘মামলায় মাদ্রাসার অধ্যক্ষকে গ্রেপ্তারের পরে ২৮ তারিখ সকাল ১১টায় আমরা মেয়েদের নিয়ে রাস্তায় প্রায় ৪৫ মিনিট ধরে সমাবেশ করেছি। সব শিক্ষক এবং প্রায় সাতশ’র বেশি ছাত্রী সেখানে ছিল।’

‘একটা নিরপরাধ মেয়েকে কেন একজন শিক্ষক নির্যাতন করলেন, কেন একটি মেয়ে যৌন নিপীড়নের শিকার হলো, ওই অধ্যক্ষের শাস্তির জন্য আমরা মানববন্ধন করেছি।’ কিন্তু এই প্রতিবাদ সমাবেশ করার সময় স্থানীয়ভাবে কোনো সমর্থন তারা পাননি।

বীথি রাণী গুহ বলছেন, ‘সরাসরি কেউ কিছু বলেনি, তবে পরে ফেসবুকে অনেকে লিখেছে যে, মাদ্রাসায় হলেও সেখানের কেউ প্রতিবাদ করছে না, আশেপাশের স্কুল থেকে প্রতিবাদ হচ্ছে না, অথচ অন্য স্কুলের ছাত্রীরা প্রতিবাদে নেমেছে, এটা তাদের পছন্দ হয়নি।’

মাদ্রাসার অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে নুসরাতকে শ্লীলতাহানির অভিযোগে মামলা করেছিলেন তার মা। ৬ এপ্রিল পরীক্ষা দিতে গেলে কয়েকজন বোরকা পড়া ব্যক্তি নুসরাতের গায়ে আগুন ধরিয়ে দেয়। ১০ এপ্রিল বুধবার নুসরাত জাহান রাফি ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে মারা যান।

নুসরাত জাহানের মৃত্যুর পরে সোনাগাজীতে কয়েকটি প্রতিবাদ সমাবেশ হয়েছে।

বিবিসির সংবাদদাতা স্কুল শিক্ষিকা বীথি রাণী গুহের কাছে জানতে চেয়েছিলেন যে, যখন নুসরাত জাহানের শরীরে আগুন লাগিয়ে দেয়া হয়, অগ্নিদগ্ধ অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি হতে হয়, তখন ফেনীতে স্থানীয়ভাবে কতটা কী প্রতিবাদ হয়েছে?

বীথি রাণী বলছেন, ‘তেমন কোনো প্রতিবাদ হয়নি। কারণ প্রশাসন সক্রিয় থাকায় পক্ষে-বিপক্ষে তেমন কোনো কথা হয়নি। ভেতরে ভেতরে সবাই ক্ষোভের আগুনে জ্বলছিল। বৃহস্পতিবার থেকে (মারা যাওয়ার পর) কিছুটা প্রতিবাদ শুরু হয়েছে। এর আগে পর্যন্ত স্থানীয়ভাবে তেমন সোচ্চার প্রতিবাদ হয়নি।’

স্থানীয় কিছু ক্ষমতাশালী লোকজনের কারণে এই প্রতিবাদ হয়নি বলে তিনি মনে করেন।

তিনি বলছেন, ‘এই এলাকাটি একটু গ্রামীণ এলাকা, বিশেষ করে ধর্মবিশ্বাস বেশি। এখানকার নারীরা বাইরে চলাফেরা করে কম, তাদের ভেতর ভয়ভীতিও বেশি থাকে।’

তাহলে তারা কিভাবে ২৮ তারিখে এই ঘটনার বিরুদ্ধে সোচ্চার হয়েছিলেন?

এই শিক্ষিকা বলছেন, ‘আমরা স্কুলের শিক্ষকরা মনে করলাম যে, একটা মেয়ে নির্যাতনের শিকার হয়েছে, আমরা একটি নারী প্রতিষ্ঠান, মেয়েদের স্কুল, আমাদের তো মাঠে নামতেই হয়। আমরা মহিলা শিক্ষক আছি ১২ জন, শিক্ষার্থী আছে ১১শ’র ওপরে।’

‘আমরা মনে করলাম, আমাদের প্রতিবাদ করা উচিত, সে কারণেই আমরা প্রতিবাদ করেছি’- তিনি বলছেন।

যখন তারা জানতে পারলেন যে, মেয়েটির শরীরে আগুন লাগিয়ে দেয়া হয়েছে, তখন তারা প্রচণ্ড কষ্ট পেয়েছিলেন।

‘শরীর একটু পুড়ে গেলে যা কষ্ট হয়, আর এই মেয়েটি তো শরীরের ৮০ শতাংশ পুড়ে যাওয়ার পরেও পাঁচ সাতদিন কীভাবে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়েছে, সেটা অনুভব করলে আর বলার ভাষা থাকে না।’

তিনি জানান, এ ধরনের ঘটনার শিকার হলে মেয়েরা যেন অবশ্যই প্রতিবাদ করে, শিক্ষার্থীদের তিনি সবসময় সেই পরামর্শই দেবেন।

 

 

টাইমস/এসআই

শ্রীলঙ্কায় গির্জা ও হোটেলে সিরিজ বোমা হামলা, নিহত দেড় শতাধিক

শ্রীলঙ্কায় গির্জা ও হোটেলে সিরিজ বোমা হামলা, নিহত দেড় শতাধিক

শ্রীলঙ্কায় খ্রিস্টান ধর্মাবলম্বীদের ইস্টার সানডের প্রার্থনার সময় রাজধানীসহ বিভিন্ন স্থানে অনন্ত তিনটি গির্জা ও তিনটি অভিজাত হোটেলে সিরিজ বোমা বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। রোববার সকালের এ ঘটনায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৫৬ জনে। তাদের মধ্যে ৩৫ জন বিদেশি রয়েছে। এছাড়া চার শতাধিক আহত হয়েছেন বলে হাসপাতাল ও পুলিশের বরাতে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

শ্রীলঙ্কায় নুতন করে আরও একটি হোটেলে বিস্ফোরণ, দুইজন নিহত   

শ্রীলঙ্কায় নুতন করে আরও একটি হোটেলে বিস্ফোরণ, দুইজন নিহত  

শ্রীলঙ্কার রাজধানী কলম্বোতে নতুন করে আরেকটি হোটেলে বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। রোববারের এ বিস্ফোরণে দুইজন নিহত হয়েছেন। পুলিশের একজন মুখপাত্রের বরাত দিয়ে বার্তা সংস্থা এএফপির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

শ্রীলঙ্কায় বিস্ফোরণের পর থেকে দুই বাংলাদেশি নিখোঁজ

শ্রীলঙ্কায় বিস্ফোরণের পর থেকে দুই বাংলাদেশি নিখোঁজ

শ্রীলঙ্কায় বিস্ফোরণের ঘটনার পর থেকে দুই বাংলাদেশি নিখোঁজ রয়েছেন বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার আলম। নিখোঁজ দুই বাংলাদেশির মধ্যে একজন প্রাপ্তবয়স্ক, অন্যজন শিশু। চার সদস্যর পরিবারটি শ্রীলঙ্কার বেড়াতে গিয়েছিল বলে জানান তিনি।

জাতীয়

শ্রীলঙ্কায় বোমা হামলার ঘটনায় প্রেসিডেন্ট ও প্রধানমন্ত্রীর নিন্দা

শ্রীলঙ্কায় বোমা হামলার ঘটনায় প্রেসিডেন্ট ও প্রধানমন্ত্রীর নিন্দা

শ্রীলঙ্কার রাজধানী কলম্বোতে গীর্জা ও হোটেলে ভয়াবহ সিরিজ বোমা হামলার ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও শোক জানিয়েছেন প্রেসিডেন্ট আব্দুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। পৃথক বার্তায় তারা এ হামলার নিন্দা জানিয়েছেন।

জাতীয়

শ্রীলঙ্কায় বাংলাদেশিরা নিরাপদে আছেন: বাংলাদেশ হাইকমিশন   

শ্রীলঙ্কায় বাংলাদেশিরা নিরাপদে আছেন: বাংলাদেশ হাইকমিশন  

শ্রীলঙ্কায় সিরিজ বোমা বিস্ফোরণের ঘটনায় বাংলাদেশিরা নিরাপদে আছেন বলে জানিয়েছেন শ্রীলঙ্কায় নিযুক্ত বাংলাদেশের হাইকমিশনার রিয়াজ হামিদুল্লাহ। তিনি জানিয়েছেন, শ্রীলঙ্কায় সিরিজ বোমা বিস্ফোরণে এখন পর্যন্ত কোনও বাংলাদেশি হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি। শ্রীলঙ্কায় বাংলাদেশের মিশন সেখানে থাকা বাংলাদেশি পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ করছে। মিশনে একটি হটলাইন খোলা হয়েছে যাতে করে যে কেউ যোগাযোগ করতে পারে।

জাতীয়

টেকনাফে বন্দুকযুদ্ধে মাদক ব্যবসায়ী নিহত

টেকনাফে বন্দুকযুদ্ধে মাদক ব্যবসায়ী নিহত

কক্সবাজারের টেকনাফের মেরিন ড্রাইভে র‌্যাবের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে মহিউদ্দিন (৩৫) নামে এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। রোববার ভোর ৪টার দিকে মেরিন ড্রাইভ সড়কের জব্বার মুন্সির হ্যাচারীর পাশে এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে। কক্সবাজার র‌্যাব-১৫ এর উপ-অধিনায়ক মেজর মোহাম্মদ রবিউল ইসলাম ঘটনাটি নিশ্চিত করছেন।

ভ্রমণ

চট্টগ্রামের খেজুরতলা বীচ

চট্টগ্রামের খেজুরতলা বীচ

অজস্র আকর্ষণীয় পর্যটন নিদর্শনে ভরপুর পাহাড় কন্যা চট্টগ্রাম। পাহাড়, সাগর, আঁকাবাঁকা পাহাড়ি সড়ক, বন্যপ্রাণীর অভয়ারণ্য, ঝাউবন, ঝুলন্ত সেতু, সমুদ্রবন্দর- কি নেই এখানে। চট্টগ্রামের অন্যতম আকর্ষণ হল এর অনিন্দ্য সুন্দর সমুদ্র সৈকতগুলো। এখানে যে কয়টি সুন্দর সৈকত আছে তার মধ্যে সৌন্দর্যের দিক থেকে খেজুরতলা বীচ অনেকটা এগিয়ে।

বিনোদন

পেশাদার খুনি থেকে ‘প্রেমিক’ সজল

পেশাদার খুনি থেকে ‘প্রেমিক’ সজল

আব্দুন নূর সজল। বাংলা নাটকের বেশ চ্যালেঞ্জিং চরিত্রের একজন তারকা। গেলো দুই বছর ধরে বেছে বেছে চ্যালেঞ্জিং চরিত্রে অভিনয় করছেন তিনি। এর আগে, বেশী সময় তাকে রোম্যান্টিক চরিত্রে পাওয়া গেলেও এখন গল্প বাছাইয়ের ক্ষেত্রে বেশ মনোযোগী হয়েছেন এই অভিনেতা।