• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • বৃহস্পতিবার, ২৮ মে ২০২০, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

কড়া নিরাপত্তায় নায়িকার ব্যাগ চুরি, ফের বিড়ম্বনার শিকার সাংবাদিকরা!

কড়া নিরাপত্তায় নায়িকার ব্যাগ চুরি, ফের বিড়ম্বনার শিকার সাংবাদিকরা!

চিত্রনায়িকা শাহনূর

বিনোদন প্রতিবেদক১৭ জুলাই ২০১৯, ০২:১৩পিএম, ঢাকা-বাংলাদেশ।

বিএফডিসিতে মঙ্গলবার বিকালে এটিএন বাংলা ফ্লোরে নতুন ছবি ‘অর্জন ৭১’ মহরত অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে অনুষ্ঠান শুরুর কিছু সময় পর চিত্রনায়িকা শাহনূর আমন্ত্রিত অতিথিদের ফুল দিয়ে বরণ করতে মঞ্চে উঠেন। মঞ্চ থেকে নেমেই সাংবাদিকদের নিজের ব্যাগ হারানোর কথা জানান তিনি।

‘অর্জন ৭১’ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল।

এ ছাড়া বিশেষ অতিথি ছিলেন ডিএমপি কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়া। তাই মঙ্গলবার দুপুর থেকেই এফডিসির গেটে বসেছিল কড়া নিরাপত্তা। এর মাঝে চুরি হয় শাহনূরের ব্যাগ।

এই প্রসঙ্গে সাংবাদিকদের নায়িকা বলেন, আমার আসনে একজনের নিকট ব্যাগ রেখে মঞ্চে উঠেছিলাম। নেমে জানতে পারি, আমার সহকারি পরিচয় দিয়ে তার কাছ থেকে ব্যাগটি নিয়ে যায়।

ওই ব্যাগে আমার টাকা, দুটি ফোনসহ প্রয়োজনীয় বেশ কিছু জিনিসপত্র ছিল। এখনো পর্যন্ত ব্যাগটি আর পাওয়া যায়নি। ঘটনাটি উপস্থিত পুলিশদের জানানো পরই শাহনূরের ব্যাগ খোঁজার তোড়জোড় শুরু হয়।

এমনকি এফডিসির গেটে বসানো হয় চেকপোস্ট। এরপর সাংবাদিকসহ সবার পকেট ও ব্যাগ চেক করা হয়। এতে করে দ্বিতীয় দফায় বিড়ম্বনার শিকার হন সাংবাদিক ও অতিথিরা। বিরক্তিকর এক অভিজ্ঞতা নিয়ে সকলে অনুষ্ঠান ত্যাগ করেন।

অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন ছবির পরিচালক মির্জা সাখাওয়াত হোসেন, চিত্রনায়ক ওমর সানী, শতাব্দী ওয়াদুদ ও প্রিয়দর্শিনীখ্যাত মৌসুমী।

এদিকে, মুক্তিযুদ্ধে পুলিশের অবদানের গল্প নিয়ে নির্মিত হতে যাচ্ছে ‘অর্জন ৭১’ সিনেমাটি।

এর আগে গত ২৪ এপ্রিল জাতীয় প্রেসক্লাবে পর্যটন নিয়ে ই-পোর্টাল ‘বিন্দু ৩৬৫’-এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠান থেকে শমী কায়সারের দু’টি স্মার্টফোন চুরি হয়ে যায়। পোর্টালটি উদ্বোধনকালে বক্তব্য দেয়ার সময় ঘটনাটি ঘটে।

এরপর বক্তব্য শেষ করে কেক কাটার সময় হঠাৎ শমী জানান, তার স্মার্টফোন দুটি পাওয়া যাচ্ছে না। তিনি এ কথা জানানোর সঙ্গে সঙ্গে মিলনায়তনের প্রবেশদ্বার বন্ধ করে দেয়া হয়। একইসঙ্গে শমীর নিরাপত্তাকর্মী সবার দেহ তল্লাশি করতে চাইলে তাতে সম্মতি জানান উপস্থিত সংবাদকর্মীরা।

তখন কেউ কেউ তল্লাশি সাপেক্ষে বের হতে চাইলে নিরাপত্তাকর্মী তাদের ‘চোর’ বলে সম্বোধন করেন। এতে পেশাগত দায়িত্ব পালন করতে আসা সাংবাদিকরা উত্তেজিত হয়ে ওঠেন। অনুষ্ঠানের আয়োজকদের সঙ্গে বাকবিতণ্ডাও হয় তাদের। অবশ্য পরে সাংবাদিকদের ক্যামেরায় ধারণকৃত ভিডিও ফুটেজে দেখা যায়, অনুষ্ঠানে কেক নিয়ে আসা লাইটিংয়ের এক কর্মী স্মার্টফোন দুটি নিয়ে গেছেন।

 

টাইমস/জেকে/এসআই

ইউনাইটেড হাসপাতালে আগুনে ৫ করোনা রোগীর মৃত্যু

ইউনাইটেড হাসপাতালে আগুনে ৫ করোনা রোগীর মৃত্যু

গুলশানে ইউনাইটেড হাসপাতালের করোনা ইউনিটে অগ্নিকাণ্ড হয়েছে। বুধবার রাত ৯টা

করোনায় আক্রান্ত হচ্ছেন শিল্পপতিরা, এপর্যন্ত ৪ জনের মৃত্যু

করোনায় আক্রান্ত হচ্ছেন শিল্পপতিরা, এপর্যন্ত ৪ জনের মৃত্যু

যোবায়ের মোহাম্মদ : করোনাভাইরাসে প্রতিদিন বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। দীর্ঘ হচ্ছে

বিসিএসে অপেক্ষমানের আরও ২ হাজার চিকিৎসক নিয়োগ!

বিসিএসে অপেক্ষমানের আরও ২ হাজার চিকিৎসক নিয়োগ!

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ দিনে দিনে বাড়ছে। এ অবস্থায় রোগীদের চিকিৎসা নিয়ে

জাতীয়

করোনায় আরও ২২ জনের মৃত্য, আক্রান্ত ১৫৪১

করোনায় আরও ২২ জনের মৃত্য, আক্রান্ত ১৫৪১

দেশে করোনাভাইরাস সংক্রমণের ৮১তম দিনে কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত হয়ে আরও ২২ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে দেশে মোট মৃত্যুর সংখ্যা গিয়ে দাড়াল ৫৪৪ জন।

রাজনীতি

খালেদা জিয়া এখনও হোম কোয়ারেন্টিনে আছেন -ফখরুল

খালেদা জিয়া এখনও হোম কোয়ারেন্টিনে আছেন -ফখরুল

বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া এখনও হোম কোয়ারেন্টিনে আছেন বলে জানিয়েছেন দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। দেশে করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব শুরু হওয়ার পরপরই খালেদা জিয়াকে শর্ত সাপেক্ষে ছয় মাসের জামিন দেয় আদালত।

জাতীয়

নারায়ণগঞ্জে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে দুই সন্তানসহ মায়ের মৃত্যু

নারায়ণগঞ্জে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে দুই সন্তানসহ মায়ের মৃত্যু

ঝড়ের আঘাতে বিদ্যুতের তার ছিঁড়ে টিনের ঘরের ওপর পড়ে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে দুই সন্তানসহ গৃহবধূর মৃত্যুর হয়েছে। এ ঘটনায় বিদ্যুতায়িত হয়ে আহত হয়েছেন আরও ৫ জন।

জাতীয়

বজ্রপাত থেকে রক্ষার উপায়

বজ্রপাত থেকে রক্ষার উপায়

তীব্র গরমে স্বস্তি এনে দেয় বৃষ্টি। কিন্তু এই স্বস্তির বৃষ্টির সঙ্গে আসা বজ্রপাত বিপর্যয়ের কারণ হয়ে দাঁড়ায়। আমাদের দেশে মার্চ থেকে অক্টোবর পর্যন্ত বজ্রপাত হয়ে থাকে। এর মধ্যে এপ্রিল ও মে মাসে বজ্রপাত তুলনামূলকভাবে বেশি হয়। আর এই বজ্রপাতে প্রায়শই প্রাণহানির শিকার হচ্ছেন দেশের মানুষ।

যা কিছু প্রথম

তালাচাবি আবিষ্কারের ইতিহাস

তালাচাবি আবিষ্কারের ইতিহাস

যবে থেকে মানুষের কিছু জিনিসপত্র সম্বল হল, তবে থেকেই সেগুলোকে আগলে রাখার প্রবণতা এসে গেল। প্রথম প্রথম তালাচাবি বলতে শুধু দড়ি বা অন্য কিছু দিয়ে বেঁধে রাখা হতো। সময়ের সঙ্গে সঙ্গে সত্যিকারের তালাচাবি ব্যবহার করতে শুরু করল মানুষ। সেগুলো কাঠ বা ধাতুর তৈরি। ঠিক কে বা কোনো সভ্যতায়ে প্রথম তালাচাবি ব্যবহার হয়েছিল সেটা সঠিকভাবে জানা যায়নি।

বিনোদন

লকডাউনে কাজ নেই, নিজের প্রাণটাই দিয়ে দিলেন অভিনেত্রী!

লকডাউনে কাজ নেই, নিজের প্রাণটাই দিয়ে দিলেন অভিনেত্রী!

করোনাভাইরাসে লকডাউনের কারণে কোন কাজ নেই। একারণে হতাশায় পড়ে আত্মহত্যা করেছেন এক অভিনেত্রী।