• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • শুক্রবার, ১৮ অক্টোবর ২০১৯, ২ কার্তিক ১৪২৬

শিশু আয়েশা হত্যা: মেয়ের শোকে এখনো নির্ঘুম রাত কাটে ইদ্রিস-রাজিয়ার

শিশু আয়েশা হত্যা: মেয়ের শোকে এখনো নির্ঘুম রাত কাটে ইদ্রিস-রাজিয়ার

খলিলুর রহমান স্টালিন, জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক২৩ মার্চ ২০১৯, ০৮:১৪পিএম, ঢাকা-বাংলাদেশ।

রাজধানীর গেণ্ডারিয়ায় দুই বছরের শিশু আয়েশা মনিকে ধর্ষণের পর হত্যার আড়াই মাস পার হয়েছে। মেয়েকে হারিয়ে পাগলপ্রায় ইদ্রিস আলী ও রাজিয়া সুলতানা দম্পতি। কোনোভাবেই মেয়ে হত্যার শোক কাটিয়ে উঠতে পারছেন না। রাতে ঘুমাতে গেলেই ছোট্ট আয়েশার মুখ ভেসে উঠে। আর মেয়ের কথা মনে হলেই তারা আর ঘুমাতে পারেন না।

শুক্রবার গেণ্ডারিয়ার দীননাথ সেন রোডের ৮২/সি/১ নম্বর বাসার গিয়ে দেখা যায়, টিনসেড কলোনির একটি রুমে ভাড়া থাকেন ইদ্রিস ও তার স্ত্রী রাজিয়া সুলতানা। অভাবের সংসারে তাদের তিন মেয়ে সন্তান রয়েছে। বড় মেয়ে ইরা মনি স্থানীয় একটি স্কুলে চতুর্থ শ্রেণিতে পড়ে। এছাড়া তানজিমা ও ফারিহা নামে যমজ মেয়ে রয়েছে তাদের।

এসময় সাংবাদিক পরিচয় দিয়ে কথা বলতে চাইলে এ প্রতিবেদককে দেখে কান্নায় ভেঙে পড়েন নিহত আয়েশা মনির বাবা-মা। সন্তানের শোকে ঠিকমতো খাওয়া-দাওয়া ভুলে গেছেন রাজিয়া সুলতানাকে দেখেই বোঝা গেল। নির্ঘুম রাত কাটানোর ছাপ তার চোখে-মুখে।

স্ত্রীকে সান্ত্বনা দেয়ার ভাষাও হারিয়ে ফেলেছেন ইদ্রিস আলী; মেয়েকে হারিয়ে তিনিও যে শোকে পাথর।

সেই দিনের মর্মান্তিক ঘটনার বর্ণনা দিতে গিয়ে কান্নাজড়িত কণ্ঠে রাজিয়া সুলতানা জানান, বাসায় গ্যাস না থাকায় গত ৫ জানুয়ারি বিকেলে পাশের নান্নু মিয়ার বাসায় রান্না করতে যান তিনি। এসময় আয়েশা মনিকে তিনি বাসায় রেখে যান। কিন্তু রান্না শেষ করে রুমে ফিরে দেখেন আয়েশা নেই। আশপাশে অনেক খোঁজাখুঁজি করেও তাকে পাওয়া যায়নি। এক পর্যায়ে সন্ধ্যার দিকে একই রোডের ৫৩/১/ছ নম্বর বাসা থেকে একটি শিশুকে ফেলে দেয়া হয়েছে এমন তথ্য পেয়ে দ্রুত সেখানে যান। পরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

রাজিয়া সুলতানা অভিযোগ করে বলেন, আমার মেয়ে বাসায় খেলাধুলা করছিল। এ সময় নাহিদ হোসেন (৪০) নামের স্থানীয় এক বাসিন্দা তার নিজ বাসার (বাসা নম্বার ৫৩/১/ছ) তৃতীয় তলার ডান পাশের ফ্ল্যাটে নিয়ে যায়। সেখানে তাকে ধর্ষণ করে। পরে বাসার নিচে ফেলে দেয়।

তিনি আরও জানান, মর্মান্তিক এ ঘটনার পর সেই দিন প্রথমে কেউ তাদের পাশে আসেনি। এক পর্যায়ে নিরুপায় হয়ে তিন মেয়েকে নিয়ে জাতীয় প্রেসক্লাবে অবস্থান করেন তিনি। মেয়ে হত্যার বিচারের দাবিতে একাই মানববন্ধন করেন।

চোখের পানি মুছতে মুছতে রাজিয়া বলেন, আমার স্বামী একজন ওয়ার্কশপ শ্রমিক। দিনের বেলা তিনি কামে চলে যান। আমিও বাসায় কাম করি। দিনে ব্যস্ত সময় পার করলেও রাতের বেলা আমার মেয়ের কথা মনে পড়ে যায়। রাতে ঘুম আসে না। অনেক সময় বিছানায় বসে কান্না করি।

তবে শোকে বিহ্বল ইদ্রিস আলী ও রাজিয়া সুলতানা দম্পতির একটাই চাওয়া-মেয়ে হত্যার সুষ্ঠু বিচার।

প্রসঙ্গত, শিশু আয়েশা মনি হত্যার ঘটনায় ৭ জানুয়ারি বাবা মো. ইদ্রিস বাদী হয়ে গেণ্ডারিয়া থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। মামলায় গেণ্ডারিয়া দিননাথ সেন রোডের ৫৩/১-ছ এর বাসিন্দা মৃত ডাক্তার ওয়াইজ উদ্দিনের ছেলে মো. নাহিদ হোসেনকে (৪০) আসামি করা হয়। পরে নাহিদকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। ওই মামলায় এখনো কারাগারে রয়েছেন নাহিদ।

শুরুতে গেণ্ডারিয়া থানার এসআই হারুন অর রশিদকে মামলার তদন্তের দায়িত্ব দেওয়া হয়। কিন্তু দীর্ঘ তিন মাস অতিবাহিত হলেও মামলার অভিযোগপত্র জমা দিতে পারেননি তিনি। পরে মামলাটি ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের নির্দেশে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

 

টাইমস/কেআরএস/জেডটি

সীমান্তে বিএসএফ জওয়ান নিহতের ঘটনা অনাকাঙ্ক্ষিত: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

সীমান্তে বিএসএফ জওয়ান নিহতের ঘটনা অনাকাঙ্ক্ষিত: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

রাজশাহীর চরঘাট সীমান্তে  বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) ও ভারতীয় সীমান্তরক্ষী...

সাঈদকে কাউন্সিলর পদ থেকে অপসারণ

সাঈদকে কাউন্সিলর পদ থেকে অপসারণ

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) ৯ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর মমিনুল...

পদ্মা সেতুর ৮৪ শতাংশ কাজ সম্পন্ন: ওবায়দুল কাদের

পদ্মা সেতুর ৮৪ শতাংশ কাজ সম্পন্ন: ওবায়দুল কাদের

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, পদ্মা সেতুর বাস্তব...

আন্তর্জাতিক

বিজিবি-বিএসএফ সংঘর্ষে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী নিহত

বিজিবি-বিএসএফ সংঘর্ষে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী নিহত

ভারতের মুর্শিদাবাদ সীমান্তে বিএসএফ ও বিজিবির মধ্যে গুলিবিনিময়ের ঘটনায় একজন বিসিএফ সদস্য নিহত হয়েছে বলে ভারত দাবি করেছে। খবর বিবিসির। বিএসএফের দক্ষিণবঙ্গ সীমান্ত অঞ্চলের ডিআইজি এসএস গুলেরিয়া বলেন, বিজিবির গুলিতে এক বিএসএফ সদস্য নিহত হয়েছেন। 

খেলাধুলা

বাংলাদেশের ফুটবলের উন্নয়নে পাশে থাকবে ফিফা

বাংলাদেশের ফুটবলের উন্নয়নে পাশে থাকবে ফিফা

বাংলাদেশ সফরে এসে ফেডারেশন ইন্টারন্যাশনাল ডি ফুটবল অ্যাসোসিয়েশন (ফিফা)’র সভাপতি জিয়ান্নি ইনফান্তিনো বলেছেন, বাংলাদেশের ফুটবলের উন্নয়নে আমরা আমাদের সমর্থন এবং সহযোগিতা অব্যাহত রাখব। বৃহস্পতিবার সকালে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে ফিফা সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাতে এসে এ কথা বলেন। বৈঠকের পরে প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম সাংবাদিকদের ব্রিফ করেন।

অর্থনীতি

গ্রামীণফোনের কাছে বিটিআরসির পাওনা আদায়ে হাইকোর্টের নিষেধাজ্ঞা

গ্রামীণফোনের কাছে বিটিআরসির পাওনা আদায়ে হাইকোর্টের নিষেধাজ্ঞা

মোবাইল অপারেটর কোম্পানি গ্রামীণফোনের কাছে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশনের (বিটিআরসি) দাবি করা ১২ হাজার ৫৮০ কোটি টাকা আদায়ের ওপর দুই মাসের স্থগিতাদেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট। একই সঙ্গে আদালত আগামী ৫ নভেম্বর আপিল শুনানির জন্য দিন ধার্য করেছেন। বৃহস্পতিবার বিচারপতি এ কে এম আবদুল হাকিম ও ফাতেমা নজীবের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ অন্তর্বর্তীকালীন এই আদেশ দেন।

বিনোদন

মৌসুমী-মিশার পাল্টাপাল্টি অভিযোগ, নির্বাচন কমিশনার যা বললেন

মৌসুমী-মিশার পাল্টাপাল্টি অভিযোগ, নির্বাচন কমিশনার যা বললেন

দেশের জাতীয় নির্বাচনের মত শিল্পী সমিতির নির্বাচনেও বাড়ছে দিন দিন উত্তেজনা। একে অন্যের দিকে অভিযোগের আঙুল তুলছেন বেশ জোরেশোরে। কেউ বলছেন, অমুখ আমাকে ধাক্কা দিয়ে বিএফডিসি থেকে বের করে দিয়েছেন, আবার কেউ বলছেন, বহিরাগতদের নিয়ে বিএফডিসিতে মিছিল করছেন।

জাতীয়

ডিসির কাছে ঘুষ দাবি, বরখাস্ত হলেন ভূমি কর্মকর্তা

ডিসির কাছে ঘুষ দাবি, বরখাস্ত হলেন ভূমি কর্মকর্তা

জমির নামজারি করতে অতিরিক্ত টাকা দাবি করায় সাতক্ষীরা সদর উপজেলার ধুলিহর ইউনিয়ন ভূমি অফিসের এক কর্মকর্তাকে সাময়িক বরখাস্ত করেছেন জেলা প্রশাসক এসএম মোস্তফা কামাল। বৃহস্পতিবার বিকালে মোকলেস আলী নামে ওই ভূমি কর্মকর্তাকে বরখাস্ত করা হয়। জানা যায়, ফাহাদ হোসেন নামে স্থানীয় এক ব্যক্তি বৃহস্পতিবার দুপুরে নিজের জমির নামজারি করাতে কাগজপত্র নিয়ে ভূমি অফিসে যান। অফিসে গেলেই কাগজপত্র দেখে পাঁচ হাজার টাকা ঘুষ চেয়ে বসেন ভূমি কর্মকর্তা মোকলেস আলী।

বিনোদন

একটি নোটিশের ব্যাপারেও জানেন না সদ্য বিলুপ্ত কমিটির সদস্যরা!

একটি নোটিশের ব্যাপারেও জানেন না সদ্য বিলুপ্ত কমিটির সদস্যরা!

সামনে শিল্পী সমিতির নির্বাচন। একে ঘিরে এরই মধ্যে শোরগোল চলছে বিএফডিসিতে। পক্ষ-বিপক্ষ দল একে-অপরের বিরুদ্ধে নানা অভিযোগ আনছেন। তবে এই নির্বাচনকে ঘিরে একটি অভিযোগ আসছে চতুর্দিক থেকে।