• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • বৃহস্পতিবার, ০৬ মে ২০২১, ২৩ বৈশাখ ১৪২৮

জাবি ছাত্রলীগের পাঁচ কর্মীর বিরুদ্ধে ছিনতাইয়ের অভিযোগ

জাবি ছাত্রলীগের পাঁচ কর্মীর বিরুদ্ধে ছিনতাইয়ের অভিযোগ

কান্ট্রি ডেস্ক৩০ মার্চ ২০১৯, ০৬:৩২পিএম, ঢাকা-বাংলাদেশ।

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের পাঁচ কর্মীর বিরুদ্ধে ছিনতাইয়ের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

অভিযুক্তরা এক বহিরাগত ব্যক্তিকে আটক করে মুঠোফোন, মানিব্যাগসহ নগদ অর্থ ছিনিয়ে নেন। পরে ওই ব্যক্তিকে মারধরও করা হয়।

শনিবার ভোরে বিশ্ববিদ্যালয়ের বোটানিক্যাল গার্ডেনের পেছনে এ ঘটনা ঘটে।

মারধর ও ছিনতাইয়ের শিকার মনির হোসেনকে (৩০) আহত অবস্থায় সাভারের একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

ঘটনার বিচার চেয়ে মনির হোসেন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর বরাবর লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের নিরাপত্তা কার্যালয় ও প্রক্টর কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, ছিনতাইয়ের সময় ছাত্রলীগের তিন কর্মীকে বিশ্ববিদ্যালয়ের কয়েকজন কর্মচারী হাতেনাতে ধরেছেন। বাকি দুজন পালিয়ে যান।

আটক ছাত্রলীগের কর্মীরা হলেন- নাটক ও নাট্যতত্ত্ব বিভাগের শিক্ষার্থী ও আ ফ ম কামালউদ্দিন হলের হলের আবাসিক ছাত্র সঞ্জয় ঘোষ, সরকার ও রাজনীতি বিভাগের শিক্ষার্থী ও মীর মশাররফ হোসেন হলের আল রাজী, ভূতাত্ত্বিক বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী ও শহীদ রফিক জব্বার হলের রায়হান পাটোয়ারি।

সঞ্জয় ঘোষ বিশ্ববিদ্যালয়ের ৪৪তম ব্যাচের শিক্ষার্থী ও বাকি দুজন ৪৫তম ব্যাচের শিক্ষার্থী। তারা তিনজন বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি জুয়েল রানার অনুসারী হিসেবে ক্যাম্পাসে পরিচিত।

পলাতক দুজন হলেন- কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হলের আবাসিক ছাত্র শাহ মুসতাক সৈকত এবং দর্শন বিভাগের শিক্ষার্থী ও মীর মশাররফ হোসেন হলের আবাসিক ছাত্র মোকাররম শিবলু।

তারা দুজন বিশ্ববিদ্যালয়ের ৪৫তম ব্যাচের ছাত্র ও শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এস এম আবু সুফিয়ানের অনুসারী হিসেবে ক্যাম্পাসে পরিচিত।

প্রক্টর কার্যালয় সূত্র অনুযায়ী, গত বছরের ১০ ডিসেম্বর রায়হান পাটোয়ারিকে ছিনতাইয়ের সঙ্গে যুক্ত থাকার দায়ে দুই বছরের জন্য বহিষ্কার করে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। তার বিরুদ্ধে ওই বছরের ২২ জুন ক্যাম্পাসে দুজন দর্শনার্থীর কাছ থেকে মোবাইল-মানিব্যাগ ছিনিয়ে নেওয়ার অভিযোগ ছিল।

ভুক্তভোগীর আত্মীয়-স্বজন ও প্রত্যক্ষদর্শীরা বলেন, কয়েক দিন আগে বিশ্ববিদ্যালয়ে শ্বশুরের কোয়ার্টারে বেড়াতে আসেন মনির হোসেন। শনিবার ভোরে তিনি তার কর্মস্থলে যোগদানের জন্য বিশমাইল এলাকায় সড়ক দিয়ে যাচ্ছিলেন। এ সময় অভিযুক্ত ছাত্রলীগের কর্মীরা তাকে আটক করে মুঠোফোন, মানিব্যাগসহ নগদ অর্থ ছিনিয়ে নেন।

একপর্যায়ে মনির হোসেন পালানোর চেষ্টা করলে তাকে ধরে ইজিবাইকে করে বোটানিক্যাল গার্ডেনের পেছনে নিয়ে যান অভিযুক্তরা। সেখানে তারা মনির হোসেনকে বেধড়ক মারধর করেন। পরে তারা মনিরের স্ত্রীর কাছে মুঠোফোনে ১ লাখ টাকা দাবি করেন।

খবর পেয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের কয়েকজন কর্মচারী ঘটনাস্থলে যান। এ সময় লোকজনের উপস্থিতি টের পেয়ে ছাত্রলীগের কর্মীরা পালানোর চেষ্টা করেন। কর্মচারীরা তাদের মধ্যে তিনজনকে আটক করে বিশ্ববিদ্যালয়ের নিরাপত্তা কর্মকর্তাদের হাতে তুলে দেন।

শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি জুয়েল রানা বলেন, বিষয়টা আমি শুনেছি। অভিযুক্তদের কেউ ছাত্রলীগের সঙ্গে যুক্ত থাকলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। প্রশাসনেরও দায়িত্ব আছে। সঞ্জয়কে ছাড়া বাকিদের চিনি না।

শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এস এম আবু সুফিয়ান বলেন, ‘ঘটনার সঙ্গে ছাত্রলীগের কর্মীরা যদি যুক্ত থাকে তাহলে অবশ্যই তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। শাখা ছাত্রলীগের সভাপতির সঙ্গে কথা বলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রক্টর আ স ম ফিরোজ উল হাসান বলেন, লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। অভিযোগের ভিত্তিতে আটক তিনজনের কাছ থেকে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি নিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। আগামীকাল ডিসিপ্লিনারি বোর্ডের জরুরি সভা ডাকা হয়েছে। শিগগির ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

 

টাইমস/জেডটি

ব্যাংকে লেনদেনের সময় বাড়লো

ব্যাংকে লেনদেনের সময় বাড়লো

ঈদের কারণে ব্যাংকে চাপ বৃদ্ধি পাওয়ায় লেনদেনের সময় বাড়ানো হয়েছে।

সব পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় খুলবে ১৭ মে

সব পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় খুলবে ১৭ মে

আগামী ১৭ মে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক হল খুলে দেয়ার পূর্ব

অটোপাসের সুযোগ নেই, এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা হবেই

অটোপাসের সুযোগ নেই, এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা হবেই

করোনা পরিস্থিতি একটু স্বাভাবিক হলেই নেয়া হবে এসএসসি ও এইচএসসি

আন্তর্জাতিক

ইরাকে মার্কিন বিমানঘাঁটিতে আবারও রকেট হামলা

ইরাকে মার্কিন বিমানঘাঁটিতে আবারও রকেট হামলা

ইরাকে অবস্থিত মার্কিন নিয়ন্ত্রিত বিমানঘাঁটি আইন আল আসাদে আবারও রকেট হামলার ঘটনা ঘটেছে। এ নিয়ে এই বিমানঘাঁটিতে এক সপ্তাহের ব্যবধানে তিন বার হামলার ঘটনা ঘটলো। এর আগে শীর্ষ সেনা কর্মকর্তা কাশেম সোলেইমানি নিহতের প্রতিক্রিয়ায় এই বিমানঘাঁটিতে মিসাইল হামলা চালিয়েছিল ইরান।

জাতীয়

ঝুঁকি নিয়ে উৎসব উদযাপন করবেন না : সেতুমন্ত্রী

ঝুঁকি নিয়ে উৎসব উদযাপন করবেন না : সেতুমন্ত্রী

ঈদে ঘরমুখো মানুষের উদ্দেশ্যে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বেঁচে থাকলে অনেক উৎসব করা যাবে। ঝুঁকি নিয়ে উৎসব করতে গিয়ে বারবার মর্মান্তিক ঘটনা ঘটছে। পদ্মায় নৌ দুর্ঘটনায় ২৬ জনের প্রাণ গেছে। করোনা বাড়ছে। যে যেখানে আছেন, সেখানে থেকেই উৎসব করুন। কর্মস্থল ছেড়ে কেউ অন্য কোথাও যাবেন না।

জাতীয়

চীনের দেয়া উপহার সিনোভ্যাকের টিকা আসছে ১২ মে

চীনের দেয়া উপহার সিনোভ্যাকের টিকা আসছে ১২ মে

উপহার হিসেবে চীনের দেয়া সিনোভ্যাকের পাঁচ লাখ ডোজ করোনার টিকা আগামী ১২ মে দেশে আসছে। পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. একে আবদুল মোমেন গণমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

জাতীয়

দেশে ফিরলেন লিবিয়ায় আটকে পড়া ১৬০ প্রবাসী

দেশে ফিরলেন লিবিয়ায় আটকে পড়া ১৬০ প্রবাসী

করোনাভাইরাস ও সহিংসতার ঘটনায় লিবিয়ায় আটকে পড়া ১৬০ বাংলাদেশি দেশে ফিরেছেন। দেশটির বৃহত্তম শহর বেনগাজি ও সংঘাতপূর্ণ এলাকায় আটকে পড়েন এসব বাংলাদেশি প্রবাসীরা। ১৬০ জনের সঙ্গে একই ফ্লাইটে এক বাংলাদেশির লাশও দেশে এসেছে।

জাতীয়

ঈদের ছুটিতে কর্মস্থল ত্যাগ করতে পারবেন না কর্মজীবীরা

ঈদের ছুটিতে কর্মস্থল ত্যাগ করতে পারবেন না কর্মজীবীরা

লকডাউন চলাকালে করোনাভাইরাসের বিস্তার রোধে ঈদুল ফিতরের ছুটিতে কর্মজীবীদির নিজ নিজ কর্মস্থলে থাকার নির্দেশনা দিয়েছে সরকার।

বিনোদন

তৃণমূলের জয় নিয়ে কটাক্ষ, কঙ্গোনার টুইটার আইডি স্থগিত

তৃণমূলের জয় নিয়ে কটাক্ষ, কঙ্গোনার টুইটার আইডি স্থগিত

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে নেতিবাচক মন্তব্য করে অনেক আগেই কুখ্যাতি অর্জন করেছে বলিউড তারকা কঙ্গনা রানাউত। এবার পশ্চিমবঙ্গের নির্বাচনের ফলাফল নিয়ে টুইট করে বিপাকে পড়েছেন তিনি। আক্রমণাত্মক ও উস্কানিমূলক মন্তব্য করার কারণে কঙ্গনার টুইটার অ্যাকাউন্ট স্থায়ীভাবে স্থগিত করেছে টুইটার কর্তৃপক্ষ।