• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • শুক্রবার, ০৫ জুন ২০২০, ২২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

আমরা কঠিন সময় পার করছি: ফখরুল

আমরা কঠিন সময় পার করছি: ফখরুল

নিজস্ব প্রতিবেদক২৩ মার্চ ২০১৯, ০৩:২৫পিএম, ঢাকা-বাংলাদেশ।

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, আমি সবসময় বলি আমরা কঠিন সময় পার করছি, সময়টা অত্যন্ত কঠিন। এটা কঠিন সময় কিন্তু সহজ সময় হয়ে আসবে যদি আমরা সবাই মনে করি হ্যাঁ আমরা পারব। আমরা এটা করতে পারি, আমরা এ নৈরাজ্যকে দূর করতে পারব আমাদের বুকের ওপর যে পাথর আছে সে পাথর সরাতে পারব।

জাতীয়তাবাদী সামাজিক সাংস্কৃতিক সংস্থা-জাসাসের আয়োজনে জাতীয় প্রেস ক্লাবে শনিবার দুপুরে প্রয়াত কবি আল মাহমুদের শোক সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন তিনি।

তিনি বলেন, আমরা যদি আল মাহমুদের মতো আমৃত্যু লড়াই-সংগ্রাম করতে থাকি তাহলে আমরা অবশ্যই পারব এবং আমরা জয়ী হব- এ বোধ আনতে হবে। এ বোধ না আনতে পারলে আমরা সফল হতে পারব না।

বিএনপি মহাসচিব আরও বলেন, কখনো হতাশ হবেন না। হতাশ হওয়ার প্রশ্নই আসে না; আমরা জয়ী হবই হব। এ দেশের মানুষ জয়ী হবে। যে রাজনীতি মানুষের কথা বলে, কৃষকের কথা বলে, যে রাজনীতি এ মাটির কথা বলে, যে রাজনীতিতে মানুষের গন্ধ পায় সে রাজনীতি কখনো পরাজিত হতে পারে না।

অবৈধ সরকার সারা বাংলাদেশকে কারাগারে পরিণত করেছে মন্তব্য করে ফখরুল বলেন, সমগ্র বাংলাদেশের মানুষের অধিকার তারা কেড়ে নিচ্ছে। আজকে কবিকে কারাগারে নেয়া হচ্ছে। কবি সাহিত্যিককে কারাগারে পাঠানো হচ্ছে। শিল্পী সাংবাদিককে কারাগারে পাঠানো হচ্ছে। কেউ ভিন্নমত পোষণ করলে তাদের ওপর নির্যাতন নেমে আসে।

তিনি বলেন, কয়েকদিন আগে পৃথিবীর বিখ্যাত সাহিত্যিক অরুন্ধতী রায় ঢাকায় এসেছিলেন। তার যেখানে বক্তব্য দেয়ার কথা ছিল সেটা বন্ধ করে দেয়া হয়। এরপর যেখানে গিয়েছিলেন সেখানেও বন্ধ করে দেয়ার চেষ্টা হয়েছিল। শেষ পর্যন্ত কিছুটা ভয়ে ভয়ে বক্তব্য দেন তিনি।

ফখরুল বলেন, আমার প্রশ্ন এ জায়গায় যারা আজকে ভিন্নমত সহ্য করতে পারে না, যাদের মধ্যে ন্যূনতম সহনশীলতাটুকু নেই তারা গণতন্ত্রের কথা বলবে কেন? সরাসরি উত্তর কোরিয়ার নেতা কিমের মতো বলা উচিত যে আমি এক দলীয় শাসন বিশ্বাস করি, আমি যা বলব সেটাই আইন-এ কথা বললেই তো হয়ে যায়। একটা ছদ্মবেশ ধারণ করে মানুষকে বিভ্রান্ত করে প্রতারণা করে একদলীয় শাসন ব্যবস্থা পুরোপুরি চালু করা হয়েছে।

জাসাসের সিনিয়র সহ-সভাপতি আবুল হোসেনের সভাপতিত্বে সভায় আরও বক্তব্য দেন-গীতিকার ও বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা গাজী মাজহারুল আনোয়ার, নয়া দিগন্তের সম্পাদক আলমগীর মহিউদ্দিন, কবি আব্দুল হাই শিকদার প্রমুখ।

 

 

টাইমস/এসআই

করোনায় আক্রান্ত আ'লীগের আরেক এমপি, এনিয়ে ৪ জন

করোনায় আক্রান্ত আ'লীগের আরেক এমপি, এনিয়ে ৪ জন

এবার করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন জামালপুর-২ (ইসলামপুর) আসনের আওয়ামী লীগের এমপি

দুগ্ধজাত খাবার ডায়াবেটিস বা উচ্চ রক্তচাপের ঝুঁকি কমাতে সক্ষম

দুগ্ধজাত খাবার ডায়াবেটিস বা উচ্চ রক্তচাপের ঝুঁকি কমাতে সক্ষম

বর্তমান যুগে আমাদের জটিল জীবনযাত্রা ও খাদ্যাভ্যাসের কারণে ডায়াবেটিস ও

গরমে ঘর ঠান্ডা রাখার ঘরোয়া পদ্ধতি

গরমে ঘর ঠান্ডা রাখার ঘরোয়া পদ্ধতি

ঘাম ও অস্বস্তিকর গরম। গ্রীষ্মের এমন আচরণে এসি ছাড়া থাকা

স্বাস্থ্য

করোনাভাইরাস থেকে বাঁচতে মাস্কের সঙ্গে চশমাও কি দরকার?

করোনাভাইরাস থেকে বাঁচতে মাস্কের সঙ্গে চশমাও কি দরকার?

আমরা ইতিমধ্যে সবাই জানি যে, নাক বা মুখ দিয়ে করোনাভাইরাস দেহে প্রবেশ করে। স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা নাক ও মুখের পাশাপাশি হাত না ধুয়ে চোখ স্পর্শ করতেও বারবার নিষেধ করছেন। এমন অবস্থায় অনেকের মনেই প্রশ্ন জাগছে সত্যিই কি চোখ দিয়ে করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হওয়া সম্ভব? যদি সত্যিই চোখ দিয়ে করোনা সংক্রমিত হবার সম্ভাবনা থাকে তাহলে চোখ স্পর্শ না করলেও বাতাসের মাধ্যমে আক্রান্ত হবার ঝুঁকি থেকে যাচ্ছে। এক্ষেত্রে নাক ও মুখে মাস্ক পরার পাশাপাশি চোখের নিরাপত্তা চশমা ব্যবহার করাও জরুরি হয়ে দাঁড়াবে।

স্বাস্থ্য

মস্তিষ্কের টিউমারের লক্ষণ ও চিকিৎসা

মস্তিষ্কের টিউমারের লক্ষণ ও চিকিৎসা

মস্তিষ্কের টিস্যুর অস্বাভাবিক বৃদ্ধিকে ব্রেইন বা মস্তিষ্কের টিউমার বলে। যেকোনো বয়সেই মস্তিষ্কের টিউমার হতে পারে। যার সঠিক কোনো কারণ খুঁজে পাওয়া যায়নি। তবে রেডিয়েশন বা বিকিরণ একটা কারণ হতে পারে বলে বিজ্ঞানীদের ধারনা। অতীতে পরিবারে কারও মস্তিষ্কে টিউমার হয়ে থাকলে অন্যদেরও খানিকটা ঝুঁকি থাকে।

জাতীয়

ফিসারি দেখতে গিয়ে বিদ্যুতের ছেড়া তারে শিক্ষকের মৃত্যু

ফিসারি দেখতে গিয়ে বিদ্যুতের ছেড়া তারে শিক্ষকের মৃত্যু

নেত্রকোনার বারহাট্টায় ফিসারি দেখতে গিয়ে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে এক শিক্ষকের মৃত্যু হয়েছে। তিনি সিংধা ইউনিয়নের তেলীকুড়ি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের

মতামত

যেভাবে মাত্র ৭ দিনে  ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রীর করোনা জয়!

যেভাবে মাত্র ৭ দিনে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রীর করোনা জয়!

আসলে কতটুকু সচেতনতা আমাদেরকে জয় এনে দিতে পারে নভেল করোনা ভাইরাসের বিপক্ষে? ভয় না পেয়ে সচেতনতার সাথেইতো বাসায় ছিলাম,

স্বাস্থ্য

সস্ত্রীক করোনায় আক্রান্ত গণস্বাস্থ্যের কিটের উদ্ভাবক ড. ফিরোজ

সস্ত্রীক করোনায় আক্রান্ত গণস্বাস্থ্যের কিটের উদ্ভাবক ড. ফিরোজ

এবার সস্ত্রীক করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ড. ফিরোজ আহমেদ। তিনি গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের র‍্যাপিড টেষ্ট কিট উদ্ভাবক দলের অন্যতম ছিলেন।

স্বাস্থ্য

মাস্ক না ফেস শিল্ড, কোনটি বেশি নিরাপদ?

মাস্ক না ফেস শিল্ড, কোনটি বেশি নিরাপদ?

কোভিড-১৯ রোগে আক্রান্তের গ্রাফ ক্রমেই উর্ধমুখী। এর মধ্যেই যেতে হচ্ছে বিভিন্ন অফিস ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠান। রাস্তা ও যানবাহনে সামাজিক দূরত্বের মাপকাঠি বজায় থাকছে না বললেই চলে। এদিকে, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা থেকে জানানো হচ্ছে- করোনাভাইরাসের মারণক্ষমতা একটুও কমেনি। কাজেই লকডাউন তোলার পর্যায়ে খুব সতর্ক থাকতে হবে। বাড়তি সতর্কতা হিসেবে অনেকেই মাস্কের উপর স্বচ্ছ প্লাস্টিকের মুখাবরণ বা ফেস শিল্ড পরছেন।