• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • শুক্রবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৫ ফাল্গুন ১৪২৬

সুযোগসন্ধানীদের আমাদের দরকার নেই: হাছান মাহমুদ

সুযোগসন্ধানীদের আমাদের দরকার নেই: হাছান মাহমুদ

নিজস্ব প্রতিবেদক১৭ জুলাই ২০১৯, ০৮:২৫পিএম, ঢাকা-বাংলাদেশ।

আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ও তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ বলেছেন, আওয়ামী লীগ পরপর তিনবার রাষ্ট্রক্ষমতায়। দলের মধ্যে অনেক সুযোগসন্ধানী ও অনুপ্রবেশকারী ঢুকেছে। তাদের চিহ্নিত করতে হবে। সুযোগসন্ধানীদের আমাদের দরকার নেই। সবার দল করার অধিকার থাকলেও পদ পাওয়ার অধিকার নেই। দলের পদ দিতে হবে বেছে বেছে।

বুধবার দুপুরে চট্টগ্রাম নগরীর একটি কমিউনিটি সেন্টারে ‘গণতন্ত্র বন্দী দিবস’ পালন উপলক্ষে চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগ আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন হাছান মাহমুদ।

তিনি বলেন, ২০০৭ সালের ১৬ জুলাই বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনাকে নয়, দেশের গণতন্ত্রকে বন্দী করা হয়েছিল। মানুষের অধিকার হরণের জন্য মূলত তখন তাকে আটক করা হয়। তাই ১৬ জুলাই শেখ হাসিনার বন্দী দিবস নয়, গণতন্ত্রের বন্দী দিবস পালন করা হচ্ছে।

সে সময়ের সেনাসমর্থিত সরকার ক্ষমতায় আসার পর তারা যদি সত্যিকারের ন্যায় প্রতিষ্ঠা করার জন্য পদক্ষেপ গ্রহণ করত, তাহলে প্রথমে খালেদা জিয়াকে গ্রেপ্তার করার কথা ছিল। কিন্তু সেটি তারা করেনি- বলেন হাছান মাহমুদ।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতে দেশ নিরাপদ। তার হাত থেকে যদি অন্য কারও হাতে যায়, তাহলে দেশ আবার দুর্নীতিতে চ্যাম্পিয়ন হবে উল্লেখ করে হাছান মাহমুদ বলেন, দেশে আবার খুনখারাবি বাড়বে ও দেশ পথ হারাবে। তাই দেশের যে অগ্রগতি, এই অগ্রগতিকে ধরে রাখতে হলে আজকের তরুণেরা যে স্বপ্ন দেখেন, সেই স্বপ্নের বাস্তবায়ন ঘটাতে হবে।

বিএনপির সঙ্গে আওয়ামী লীগের রাজনীতির আদর্শগত পার্থক্য রয়েছে জানিয়ে তথ্যমন্ত্রী বলেন, রাজনীতি হচ্ছে ব্রত। আওয়ামী লীগ জনগণের উন্নয়নের ও দেশের জন্য রাজনীতি করে। বিএনপির রাজনীতি হচ্ছে হালুয়া-রুটি ভাগাভাগির রাজনীতি।

তিনি বলেন, জিয়াউর রহমান যখন ক্ষমতায় এসেছিলেন, তখন ক্ষমতার হালুয়া–রুটি বিলিয়ে দল গঠন করেছিলেন। হালুয়া-রুটি খেয়ে তখন যারা বিএনপিতে যোগদান করেছিলেন, তারা এখন বিএনপির বড় বড় নেতা। বিএনপির সঙ্গে আমাদের পার্থক্য সেখানেই।

 

 

টাইমস/এসআই

গ্রাহক পর্যায়ে ইউনিট প্রতি ৩৬ পয়সা বাড়ল বিদ্যুতের দাম

গ্রাহক পর্যায়ে ইউনিট প্রতি ৩৬ পয়সা বাড়ল বিদ্যুতের দাম

বিদ্যুতের দাম আরেক দফা বাড়ানো হয়েছে। পাইকারি, খুচরা ও সঞ্চালন-

শপথ নিলেন ঢাকার দুই সিটির মেয়র

শপথ নিলেন ঢাকার দুই সিটির মেয়র

ঢাকা দক্ষিণ ও উত্তর সিটি করপোরেশনের নবনির্বাচিত দুই মেয়র ও

চসিক নির্বাচনে ৯ মেয়র প্রার্থীর মনোনয়ন জমা

চসিক নির্বাচনে ৯ মেয়র প্রার্থীর মনোনয়ন জমা

চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন (চসিক) নির্বাচনে মনোনয়ন জমা দিয়েছেন ৯ মেয়র

জাতীয়

বাংলাদেশ নারী ক্ষমতায়নের রোল মডেল: রংপুরে স্পিকার

বাংলাদেশ নারী ক্ষমতায়নের রোল মডেল: রংপুরে স্পিকার

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নারী ক্ষমতায়নের পথিকৃৎ উল্লেখ করে জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী বলেছেন, বিশ্বে বাংলাদেশ আজ নারী ক্ষমতায়নের রোল মডেল। রাজনৈতিক ও অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ডে তরুণ নারী সমাজ এগিয়ে আসলে অচিরেই সমৃদ্ধ সোনার বাংলা প্রতিষ্ঠিত হবে।

আন্তর্জাতিক

নির্বাচনে হেরে দিল্লিতে দাঙ্গা করছে বিজেপি

নির্বাচনে হেরে দিল্লিতে দাঙ্গা করছে বিজেপি

নির্বাচনে হেরে গিয়েই দিল্লিতে দাঙ্গা শুরু করেছে বিজেপি, শিব সেনার মুখপাত্র হিসেবে পরিচিত ‘সামানা’ পত্রিকাটির একটি সম্পাদকীয়তে এমনটি দাবি করা হয়েছে। শিব সেনা বলছে, “এটি রহস্যজনক যে বিজেপি দিল্লির বিধানসভা নির্বাচন হেরে যাওয়ার কয়েক দিন পর থেকেই দাঙ্গা শুরু হয়েছে। বিজেপি হেরেছে এবং এখন দিল্লির এই অবস্থা।”

জাতীয়

বগুড়ায় বিয়ের আসরে বরকে রেখে প্রেমিকের সঙ্গে পালালো কনে

বগুড়ায় বিয়ের আসরে বরকে রেখে প্রেমিকের সঙ্গে পালালো কনে

পারিবারিকভাবে ১০ দিন আগে মামাতো ভাই রফিকুল ইসলাম বিদ্যুতের সঙ্গে নবম শ্রেণির মাদ্রাসাছাত্রী আতিয়া আক্তারের বিয়ে ঠিক হয়। সে অনুযায়ী বিয়ের জন্য বৃহস্পতিবার বরসহ লোকজন কনের বাড়িতে আসে। এসময় বরপক্ষের লোকজনকে আপ্যায়ন করতে ব্যস্ত হয়ে পড়েন কনের লোকজন। এই সুযোগে আতিয়া আক্তার কৌশলে কনে সাজে উধাও হয় প্রেমিকের সঙ্গে। পরে বর ও তার লোকজন ফিরে যান।

রাজনীতি

নাছিরকে নিয়ে ফরম জমা দিলেন রেজাউল

নাছিরকে নিয়ে ফরম জমা দিলেন রেজাউল

চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের মেয়র ও মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ জ ম নাছির উদ্দীনকে সঙ্গে নিয়ে নির্বাচন কমিশনে মনোনয়ন ফরম জমা দিয়েছেন আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী রেজাউল করিম চৌধুরী।

খেলাধুলা

বঙ্গমাতা গোল্ডকাপের ফাইনালে খুলনার মেয়েরা

বঙ্গমাতা গোল্ডকাপের ফাইনালে খুলনার মেয়েরা

বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের অনূর্ধ্ব-১৭ (বালিকা) টুর্নামেন্টের ফাইনালে উঠেছে খুলনা বিভাগের মেয়েরা।

স্বাস্থ্য

দই খেলে দূর হবে পেটের ব্যথাসহ নানা সমস্যা

দই খেলে দূর হবে পেটের ব্যথাসহ নানা সমস্যা

দই আমাদের অতিপরিচিত ও প্রিয় একটি খাবার। আমাদের মধ্যে বেশিরভাগ লোকই দই খেতে পছন্দ করেন। এটি যে কেবল স্বাদেই অসাধারণ তা কিন্তু নয়, হজমে সহায়তা করাসহ ত্বককে সুস্থ রাখতে দইয়ের ভূমিকাও অতুলনীয়। মশলাদার খাবারের পর দই খাওয়ার রীতি আমাদের সমাজে এখনো অনেক জায়গায় প্রচলিত রয়েছে। এটি কিন্তু এমনি এমনি সৃষ্টি কোনো রীতি নয়, বরং এর পেছনে রয়েছে বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যা।