• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • বুধবার, ০৩ জুন ২০২০, ২০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

গর্ভধারণে হৃদরোগের ঝুঁকি

গর্ভধারণে হৃদরোগের ঝুঁকি

স্বাস্থ্য ডেস্ক২৯ জানুয়ারি ২০১৯, ০৮:৫৫এএম, ঢাকা-বাংলাদেশ।

হৃদরোগের ঝুঁকির ক্ষেত্রে গর্ভধারণের প্রভাব নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে বিতর্ক চলছে। তবে চীনা গবেষকদের একটি গবেষণায় দেখা গেছে যে, নিঃসন্তান নারীদের তুলনায় যারা গর্ভধারণ করেছেন তাদের হৃদরোগ ও স্ট্রোক হবার সম্ভাবনা বেশি।

সম্প্রতি ‘ইউরোপিয়ান সোসাইটি অফ কার্ডিওলোজি’ জার্নালে প্রকাশিত একটি গবেষণায় এ তথ্য ওঠে এসেছে।

এর আগে বেশ কিছু গবেষণায় দেখা গেছে, গর্ভধারণের কারণে রক্তনালীর বৈশিষ্ট্য, রক্তের আয়তন ও হৃদকম্পনের মাত্রায় পরিবর্তন ঘটে। তবে হৃদরোগের ঝুঁকির ক্ষেত্রে গর্ভধারণের প্রভাব নিয়ে বরাবরই বিতর্ক থেকে গেছে।

গর্ভধারণের সঙ্গে কার্ডিওভাসকুলার ডিসিস বা হৃদরোগের সম্পর্ক রয়েছে কি না তা জানতে চীনের হুবেই প্রদেশ ভিত্তিক হোয়াঝং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা দশটি গবেষণার ফলাফল পর্যালোচনা করেছেন।

বিশ্বব্যাপী তিন মিলিয়ন নারীকে এই গবেষণায় অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছিল, যাদের মধ্যে দেড় লাখেরও বেশি নারী ৬ থেকে ৫২ বছরের মধ্যে হৃদরোগ ও স্ট্রোকে আক্রান্ত হয়েছিলেন।

গবেষকরা দেখেছেন যে, একবার সন্তান জন্মদানের কারণে হৃদরোগ ও স্ট্রোকের ঝুঁকি ১৪ শতাংশ বৃদ্ধি পায়। একইসঙ্গে গর্ভধারণের সংখ্যার সঙ্গে কার্ডিওভাসকুলার রোগের ঝুঁকি বৃদ্ধির উল্লেখযোগ্য সম্পর্ক রয়েছে বলেও এই প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়।

গবেষণায় দেখা যায়, ওজন, ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপ, ধূমপান ইত্যাদি উপাদান ছাড়াও কেবল প্রতিবার সন্তান জন্মদানের কারণেই নারীদের কার্ডিওভাসকুলার রোগে আক্রান্ত হবার ঘটনা চার শতাংশ বেশি ছিল।

সেইসঙ্গে প্রতিবারে সন্তান জন্মদানের ফলে নারীদের করোনারি হার্ট ডিসিস ৫ শতাংশ ও স্ট্রোক তিন শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছে।

গবেষণাদলের প্রধান ওয়াং ডংমিং বলেন, গর্ভধারণের কারণে দেহে প্রদাহ ঘটে এবং তলপেটের চারপাশে ফ্যাট টিস্যুর জমাট বৃদ্ধি পায়। এই পরিবর্তনগুলোই মূলত দেহের কার্ডিওভাসকুলার সিস্টেমকে স্থায়ীভাবে প্রভাবিত করে যা হৃদরোগ ও স্ট্রোকের ঝুঁকি বাড়ায়।

তবে এক্ষেত্রে নারীদের অনেক কিছু করার আছে বলে গবেষকরা মনে করেন।

এজন্য ভবিষ্যৎ সুস্বাস্থ্য নিশ্চিত করতে ধূমপান ছেড়ে দেয়া, অধিকহারে নিয়মিত ব্যায়াম করা, স্বাস্থ্যকর খাবার খাওয়া এবং ওজন নিয়ন্ত্রণের পরামর্শ দিয়েছেন গবেষকরা।

 

টাইমস/এএইচ/জিএস

নেতাকর্মীদের যে নির্দেশনা দিলেন প্রধানমন্ত্রী

নেতাকর্মীদের যে নির্দেশনা দিলেন প্রধানমন্ত্রী

করোনা প্রাদুর্ভাবের কালে জনগনের স্বাস্থ্য সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে আওয়ামী লীগের

আক্রান্ত ৫৫ হাজার ছাড়াল, আরও ৩৭ জনের মৃত্যু

আক্রান্ত ৫৫ হাজার ছাড়াল, আরও ৩৭ জনের মৃত্যু

দেশে করোনাভাইরাসে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৫৫ হাজার ছাড়িয়ে গেছে। গত

যুক্তরাষ্ট্রে কারফিউ ভেঙ্গে রাস্তায় মানুষ, আটক ২০০

যুক্তরাষ্ট্রে কারফিউ ভেঙ্গে রাস্তায় মানুষ, আটক ২০০

শেতাঙ্গ পুলিশ কর্মকর্তার নির্যাতনে কৃষ্ণাঙ্গ ব্যক্তির মৃত্যুর ঘটনায় অগ্নিগর্ভ যুক্তরাষ্ট্র।

আন্তর্জাতিক

লাদাখ সীমান্তে ভারতের ভেতর ঢুকে পড়েছে চীনা সেনা

লাদাখ সীমান্তে ভারতের ভেতর ঢুকে পড়েছে চীনা সেনা

বিরোধপূর্ণ পূর্ব লাদাখে চীনা সেনাবাহিনী ভারতের অংশে ঢুকে পড়েছে বলে স্বীকার করেছেন ভারতের প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং। তিনি বলেন, লাদাখের ওই অঞ্চলটুকু চীন নিজেদের বলে দাবি করলেও মুলত তা অখন্ড ভারতের অংশ।

আন্তর্জাতিক

মুম্বাইয়ে আঘাত হেনেছে ঘূর্ণিঝড় ‘নিসর্গ’

মুম্বাইয়ে আঘাত হেনেছে ঘূর্ণিঝড় ‘নিসর্গ’

ভারতের মহারাষ্ট্র উপকূলে আছড়ে পড়েছে অতি সুপার ঘূর্ণিঝড় ‘নিসর্গ’। বুধবার বেলা ১টার দিকে নিসর্গ মহারাষ্ট্রের উপকূলে আঘাত হানে। আরব সাগরে সৃষ্ট অতি সুপার ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে মুম্বাই ও আশেপাশের এলাকায় ভারি বর্ষণ শুরু হয়েছে।

জাতীয়

সিলেট সিটির সাবেক ও বর্তমান মেয়রের স্ত্রী করোনায় আক্রান্ত

সিলেট সিটির সাবেক ও বর্তমান মেয়রের স্ত্রী করোনায় আক্রান্ত

সিলেট সিটি করপোরেশনের (সিসিক) সাবেক ও বর্তমান মেয়রের স্ত্রী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। বর্তমান সিটি মেয়র আরিফুল হক

জাতীয়

চকরিয়ায় বৃদ্ধকে বিবস্ত্র করে পেটালেন যুবলীগ নেতা

চকরিয়ায় বৃদ্ধকে বিবস্ত্র করে পেটালেন যুবলীগ নেতা

পূর্ব শত্রুতার জেরে আওয়ামী লীগের এক প্রবীণ নেতাকে প্রকাশ্যে বিবস্ত্র করে পিটিয়েছেন এক যুবলীগ নেতা। এরই মধ্যে অমানবিক ও পৈশাচিক এই নির্যাচতনের একটি ভিডিও চিত্র ভাইরাল হয়েছে।

জাতীয়

নটরডেম-হলিক্রসসহ চার্চ পরিচালিত ৪ কলেজে ভর্তি স্থগিত

নটরডেম-হলিক্রসসহ চার্চ পরিচালিত ৪ কলেজে ভর্তি স্থগিত

চার্চ (খ্রিস্টান মিশনারি) পরিচালিত চার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে শিক্ষার্থীদের একাদশে ভর্তি স্থগিত করা হয়েছে। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো হল, নটরডেম

স্বাস্থ্য

কোভিড-১৯ নিয়ে ইউটিউবের অনেক ভিডিও’র তথ্যই বিভ্রান্তিমূলক

কোভিড-১৯ নিয়ে ইউটিউবের অনেক ভিডিও’র তথ্যই বিভ্রান্তিমূলক

ইন্টারনেটে যেকোনো তথ্য কিংবা ভিডিও জনপ্রিয় হওয়ার পেছনে রহস্যময় কোনো না কোনো কারণ থাকতে পারে, কিন্তু সঠিক তথ্য প্রদানের সাথে এর কোনো যোগসূত্র নেই বলে মনে করছেন গবেষকরা। বিএমজে গ্লোবাল হেলথ কর্তৃক সম্প্রতি প্রকাশিত একটি সমীক্ষায় দেখা গেছে যে, সার্স-কোভ-২ নিয়ে আলোচনা করা সর্বাধিক দেখা প্রতি চারটি ইউটিউব ভিডিওর মধ্যে একটিতে বিভ্রান্তিমূলক বা ভুল তথ্য রয়েছে।