• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • শুক্রবার, ২৯ মে ২০২০, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

ঈদে দাওয়াত দিয়ে এনে প্রেমিকাকে ধর্ষণ করল যুবক!

ঈদে দাওয়াত দিয়ে এনে প্রেমিকাকে ধর্ষণ করল যুবক!

নিজস্ব প্রতিবেদক, নারায়ণগঞ্জ১০ জুন ২০১৯, ০৯:০১পিএম, ঢাকা-বাংলাদেশ।

চট্টগ্রাম থেকে নারায়ণগঞ্জে প্রেমিকের সঙ্গে দেখা করতে এসে ধর্ষণের শিকার হয়েছেন এক তরুণী।

শুক্রবার নারায়ণগঞ্জ শহরের একটি বাসায় নিয়ে তাকে ধর্ষণ করা হয় বলে অভিযোগ করেছেন ওই তরুণী।

এ ঘটনায় সোমবার দুপুরে প্রেমিক সানিসহ তার মা ও ভাইকে আসামি করে নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানায় মামলা করেছেন ওই নারী।

ধর্ষণের ঘটনায় জড়িত রবিউল ইসলাম সানি মুন্সীগঞ্জের ফুলতলা এলাকার নূরুল হক বেপারীর ছেলে। সানি পোশাক কারখানার কর্মী। আর ধর্ষণের শিকার তরুণীর বাড়ি চট্টগ্রামের হাটহাজারী উপজেলায়।

এদিকে ধর্ষণের শিকার ওই তরুণীর অভিযোগ, ঘটনার পর ধর্ষককে আটক করলেও রহস্যজনক কারণে ছেড়ে দিয়েছে পুলিশ।

তবে পুলিশ বলছে, কাউকে আটক করা হয়নি। প্রেমিক-প্রেমিকার হট্টগোলের সময় ঘটনাস্থলে হাজির হয় পুলিশ। তখন প্রেমিকাকে রেখে কৌশলে পালিয়ে যায় প্রেমিক।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা গেছে, ছয় মাস আগে চট্টগ্রামের হাটহাজারী উপজেলায় এক বিয়ের অনুষ্ঠানে রবিউল ইসলাম সানির সঙ্গে ওই তরুণীর পরিচয় হয়।

এরপর তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। ঈদ উপলক্ষে তরুণীকে দাওয়াত দেন সানি। শুক্রবার চট্টগ্রাম থেকে নারায়ণগঞ্জে আসেন তরুণী। পরে শহরের একটি বাড়িতে নিয়ে তরুণীকে ধর্ষণ করেন সানি।

ধর্ষণের পর তরুণীকে বাসে তুলে চট্টগ্রাম পাঠানোর চেষ্টা করা হয়। কিন্তু সানিকে ছেড়ে চট্টগ্রামে যেতে আপত্তি জানান তরুণী।

বিষয়টি নিয়ে তাদের মধ্যে বাগবিতণ্ডা হয়। তাদের বাগবিতণ্ডা দেখে আশপাশের লোকজন জড়ো হন। ওই সময় ঘটনাস্থলে এসে সানিকে আটক করে পুলিশ। কিন্তু পরে তাকে ছেড়ে দেয় পুলিশ।

ধর্ষণের শিকার তরুণী জানান, শুক্রবার চট্টগ্রাম থেকে একটি বাসে করে সাইনবোর্ড এসে নামি। সাইনবোর্ড থেকে সানি আমাকে এক বাড়িতে নিয়ে যায়। সেখানে আমাকে ধর্ষণ করে। ওই দিন রাতে জোর করে আমাকে চট্টগ্রামের গাড়িতে উঠিয়ে দিতে শহরের উকিলপাড়া শ্যামলী বাস কাউন্টারে নিয়ে যায় সে।

বিয়ে করা ছাড়া আমি চট্টগ্রামে ফিরব না জানালে তর্কাতর্কি শুরু করে সানি। বিষয়টি নিয়ে তার সঙ্গে আমার বাগবিতণ্ডা হয়। বাগবিতণ্ডা দেখে আশপাশের লোকজন জড়ো হয়। ওই সময় থানায় খবর দিলে ঘটনাস্থলে এসে সানি ও আমাকে আটক করে পুলিশ। কিন্তু পরে পুলিশ সানিকে ছেড়ে দেয় বলে অভিযোগ করেন তিনি।

তরুণীর ভাষ্য, বিয়ের কথা বলে আমাকে চট্টগ্রাম থেকে নারায়ণগঞ্জে নিয়ে আসে সানি। পরে আমাকে ধর্ষণ করে চট্টগ্রামে পাঠিয়ে দেয়ার চেষ্টা করা হয়।

আমাদের সম্পর্কের বিষয়টি সানির মা ও ভাই এবং পরিবারের সবাই জানেন বলে দাবি করেন ওই তরুণী।

এ ব্যাপারে নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানা পুলিশের ওসি কামরুল ইসলাম বলেন, তরুণীকে ধর্ষণের ঘটনায় মামলা হয়েছে। ইতিমধ্যে তরুণীর ডাক্তারি পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে। ধর্ষককে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

তবে আসামি আটক করে ছেড়ে দেয়ার বিষয়টি অস্বীকার করে ওসি বলেন, পুলিশ কোনো আসামিকে আটক করেনি, ছেড়ে দেয়ার তো প্রশ্নই আসে না।

 

টাইমস/জেডটি

‘করোনায় অযথা দামি ইনজেকশন নয়, খরচ মাত্র ১০০ টাকা’

‘করোনায় অযথা দামি ইনজেকশন নয়, খরচ মাত্র ১০০ টাকা’

গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ও ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী জানিয়েছেন করোনাভাইরাসে

সব পাবলিক-প্রাইভেট ভার্সিটি ১৫ জুন পর্যন্ত ছুটি

সব পাবলিক-প্রাইভেট ভার্সিটি ১৫ জুন পর্যন্ত ছুটি

সব পাবলিক ও প্রাইভেট ভার্সিটিতে ছুটি বৃদ্ধি করা হয়েছে। আগামী

অন্যদের বাঁচাতে প্লাজমা দিলেন করোনাজয়ী ভাই-বোন

অন্যদের বাঁচাতে প্লাজমা দিলেন করোনাজয়ী ভাই-বোন

করোনা ভাইরাসকে জয় করেছেন বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রী মাহপারা তাসনীম ও তার

জাতীয়

প্রেমিককে আটকে ছাত্রীকে ধর্ষণ, মুক্তিপণ চেয়ে আটক বখাটেরা!

প্রেমিককে আটকে ছাত্রীকে ধর্ষণ, মুক্তিপণ চেয়ে আটক বখাটেরা!

ঝালকাঠির কাঁঠালিয়ার পটিখালঘাটায় প্রেমিককে আটকে রেখে ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। শুধু তাই নয় তাদের আটকে রেখে মুক্তিপণও

আন্তর্জাতিক

করোনাভাইরাসে ১৮ দেশে ৭১৭ বাংলাদেশির মৃত্যু

করোনাভাইরাসে ১৮ দেশে ৭১৭ বাংলাদেশির মৃত্যু

করোনাভাইরাসে দেশের বাইরেও মৃত্যুর মিছিল থামছে না। এপর্যন্ত আমেরিকাসহ ১৮ দেশে ৭১৭ বাংলাদেশির মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে

জাতীয়

করোনা: একদিনে রেকর্ড ২৫২৩ জন শনাক্ত, ২৩ জনের মৃত্যু

করোনা: একদিনে রেকর্ড ২৫২৩ জন শনাক্ত, ২৩ জনের মৃত্যু

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় মহামারি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছেন ২ হাজার ৫২৩ জন। যা একদিনে আক্রান্তের হিসেবে সর্বোচ্চ। এ নিয়ে ভাইরাসটিতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল ৪২ হাজার ৮৪৪। একই সময়ে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন আরও ২৩ জন। এতে ভাইরাসটিতে মৃতের সংখ্যা দাঁড়াল ৫৮২ জনে।

জাতীয়

করোনায় আক্রান্ত পুলিশের ৪৫৪৪ সদস্য, সুস্থ ১৫৬৩

করোনায় আক্রান্ত পুলিশের ৪৫৪৪ সদস্য, সুস্থ ১৫৬৩

মহামারী করোনাভাইরাসে এ পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন পুলিশের বিভিন্ন পর্যায়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাসহ চার হাজার ৫৪৪ জন সদস্য। তাদের মধ্যে সুস্থ হয়েছেন এক হাজার ৫৬৩ জন। সুস্থ হওয়াদের মধ্যে বেশির ভাগ পুলিশ সদস্যই পুনরায় কাজে যোগ দিয়েছেন।

জাতীয়

প্রাথমিকের প্রশ্ন যাবে বাড়িতে, অভিভাবকদের সামনে পরীক্ষা!

প্রাথমিকের প্রশ্ন যাবে বাড়িতে, অভিভাবকদের সামনে পরীক্ষা!

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ দিনে দিনে বাড়ছে। এরই মাঝে দেশে লকডাউন শিথিল করে দেয়া হচ্ছে। খুলছে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান। গাড়ি চলাচলও ধীরে

বিনোদন

যেসব শর্তে আবার শুরু হচ্ছে নাটকের শুটিং

যেসব শর্তে আবার শুরু হচ্ছে নাটকের শুটিং

কিছুদিন আগে গত ১৭ মে ৬ শর্ত মেনে নিজ দায়িত্বে শুটিং শুরুর সিদ্ধান্ত নিয়েছিল টিভি নাটকের শীর্ষ সংগঠনগুলো। যদিও এই সিদ্ধান্তের একদিন পরই নিজেদের মধ্যে মতের মিল না হওয়ায় দূরে সরে আসে সংগঠনগুলো।