• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • বুধবার, ২০ নভেম্বর ২০১৯, ৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

মাঝ আকাশে রাহুলের বিমানে ত্রুটি

মাঝ আকাশে রাহুলের বিমানে ত্রুটি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক২৬ এপ্রিল ২০১৯, ০৫:৪৫পিএম, ঢাকা-বাংলাদেশ।

ভারতের বিহারে নির্বাচনী প্রচারে যাওয়ার পথে মাঝ আকাশে ত্রুটি দেখা দেয় কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধীর বিমান। তার জেরে তড়িঘড়ি দিল্লি ফিরে আসতে হয় তাকে।

শুক্রবার বিহারের সমস্তিপুর, ওডিশার বালেশ্বর এবং মহারাষ্ট্রের সঙ্গমনেরে জনসভা ছিল রাহুল গান্ধীর। সমস্তিপুরে সভা হওয়ার কথা ছিল সকাল সাড়ে ১০টায়। সেই মতো প্রথম বিহারের উদ্দেশেই রওনা দেন তিনি। তখনই বিপত্তি বাধে বলে জানা গেছে।

আনন্দবাজার জানায়, নিজের টুইটার হ্যান্ডলে একটি ভিডিও পোস্ট করেন রাহুল গান্ধী। তাতে দুই চালককে ওই বিমানটিকে নিয়ন্ত্রণে রাখতে দেখা যায়।

ভিডিওটি পোস্ট করে রাহুল লেখেন, ‘আজ পটনা যাওয়ার পথে বিমানের ইঞ্জিনে গোলযোগ দেখা দেয়। তাই দিল্লি ফিরে আসতে বাধ্য হই আমরা। সমস্তিপুর, বালেশ্বর এবং সঙ্গমনেরে সভা দেরিতে হবে। অসুবিধার জন্য ক্ষমাপ্রার্থী আমরা।’

মার্কিন সংস্থা হকার বিচক্র্যাফ্ট সংস্থার নির্মিত এক ইঞ্জিন বিশিষ্ট আট আসনের কিং এয়ার বি২০০০ বিমানে চেপে রাহুল গান্ধী নির্বাচনী প্রচারে রওনা দিয়েছিলেন বলে জানা গেছে। কিন্তু নির্বাচনী প্রচারে সাধারণত একটি মাত্র ইঞ্জিন বিশিষ্ট ছোট বিমান ব্যবহার করা হয় না বলে সংবাদ মাধ্যমকে জানান মুম্বাইয়ের বিমান বিশেষজ্ঞ প্রদীপ থাম্পি।

অবশ্য এ বছর নির্বাচনের তিনমাস আগে থেকেই বিমানের বুকিং শুরু হয়ে গিয়েছিল। হাতের কাছে অন্য কিছু না পেয়েই কংগ্রেস সভাপতি ওই বিমানটিতে উঠেছিলেন বলে জল্পনা। কংগ্রেসের তরফে যদিও এখন পর্যন্ত এ ব্যাপারে কিছু বলা হয়নি। তবে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছে বেসামরিক বিমান পরিবহন সংস্থা (ডিজিসিএ)।

এটাই প্রথম নয়, এর আগেও মাঝ আকাশে বিপত্তিতে পড়েছেন রাহুল গান্ধী। গতবছর দিল্লি থেকে কর্নাটকের হুবলি যাওয়ার পথে যান্ত্রিক ত্রুটির জেরে মাঝ আকাশে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলে তার বিমান। সে বার কোনো ক্রমে পরিস্থিতি সামলে নেন পাইলট। অল্পের জন্য রক্ষা পান কংগ্রেস সভাপতি। বিষয়টি নিয়ে থানায় অভিযোগ পর্যন্ত জানিয়েছিল কংগ্রেস।

 

টাইমস/এসআই

লবণের দাম বেশি নিলে জেলে পাঠান, জরিমানা করুন: ভোক্তা অধিদপ্তরকে বাণিজ্যমন্ত্রী

লবণের দাম বেশি নিলে জেলে পাঠান, জরিমানা করুন: ভোক্তা অধিদপ্তরকে বাণিজ্যমন্ত্রী

লবণের দাম যারা বাড়াচ্ছে তাদের জেলে পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী

লবণের ভালো-মন্দ দিক

লবণের ভালো-মন্দ দিক

লবণ বা নুন​ হলো খাদ্যে ব্যবহৃত এক প্রকারের দানাদার পদার্থ,

ব্যায়ামের আগে যেসব খাবার খেতে মানা

ব্যায়ামের আগে যেসব খাবার খেতে মানা

যারা জিমে গিয়ে ব্যায়াম করেন, তাদের জিমের প্রশিক্ষকরা পরামর্শ দেন

আন্তর্জাতিক

প্রধান শিক্ষককে খুঁটিতে বেঁধে শাস্তি

প্রধান শিক্ষককে খুঁটিতে বেঁধে শাস্তি

বিদ্যালয়ে সময় মতো উপস্থিত না হলে সাধারণত শিক্ষার্থীদের শাস্তি পেতে হয়। তবে এবার ঘটেছে তার উল্টো ঘটনা। সময় মতো বিদ্যালয়ে না আসায় প্রধান শিক্ষককে খুঁটির সঙ্গে বেঁধে শাস্তি দিয়েছেন অভিভাবকরা।

রাজনীতি

মানুষকে জিম্মি করে পরিবহন ধর্মঘট করবেন না: নাসিম

মানুষকে জিম্মি করে পরিবহন ধর্মঘট করবেন না: নাসিম

আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য এবং কেন্দ্রীয় ১৪ দলের মুখপাত্র মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, আমাদের সড়কে শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনতে হবে। দেশবাসীকে অনুরোধ করব নতুন সড়ক পরিবহন আইন হয়েছে, তা আপনারা মেনে চলুন। আর পরিবহন মালিক ও শ্রমিকদের অনুরোধ করব মানুষকে জিম্মি করে ধর্মঘট করবেন না। মঙ্গলবার দুপুরে বঙ্গবন্ধু এভিনিউস্থ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে ১৪ দলের বৈঠক শেষে এক সংবাদ সম্মেলনে এই আহবান জানান তিনি।

জাতীয়

চাহিদার চেয়ে ৬ গুণ বেশি লবণ মজুদ আছে: শিল্প মন্ত্রণালয়

চাহিদার চেয়ে ৬ গুণ বেশি লবণ মজুদ আছে: শিল্প মন্ত্রণালয়

লবণ নিয়ে সারা দেশে গুজব ছড়ানো হচ্ছে। সে গুজবে কাউকে কান না দেওয়ার পরামর্শ দিয়ে শিল্প মন্ত্রণালয় এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলেছে, দেশের চাহিদার তুলনায় ছয় গুণ বেশি লবণ মজুদ আছে। মঙ্গলবার শিল্প মন্ত্রণালয় থেকে পাঠানো প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ‘একটি স্বার্থান্বেষী মহল লবণের সঙ্কট রয়েছে মর্মে গুজব রটনা করে অধিক মুনাফা লাভের আশায় লবণের দাম অস্থিতিশীল করার অপচেষ্টা চালাচ্ছে বলে প্রতীয়মান হচ্ছে। এ ধরনের গুজবে বিভ্রান্ত না হওয়ার জন্য শিল্প মন্ত্রণালয় সকলের দৃষ্টি আকর্ষণ করছে।’

রাজনীতি

সাবেক মন্ত্রী মীর নাছিরের ১৩ বছরের সাজা বহাল

সাবেক মন্ত্রী মীর নাছিরের ১৩ বছরের সাজা বহাল

দুর্নীতির মামলায় বিএনপি নেতা মীর মোহাম্মদ নাছির উদ্দিনকে ১৩ বছরের সাজা বহাল রেখেছে হাইকোর্ট। তাছাড়া নাছির উদ্দিনের ছেলে মীর মোহাম্মদ হেলাল উদ্দিনকে দেওয়া তিন বছরের কারাদণ্ডও বহাল রেখেছে আদালত। মঙ্গলবার এই রায় দেয় বিচারপতি এ কে এম আব্দুল হাকিম ও বিচারপতি ফাতেমা নজীবের হাইকোর্ট বেঞ্চ।

জাতীয়

গুলিস্তানের যাত্রীরা সদরঘাট যান ঘুমিয়ে!

গুলিস্তানের যাত্রীরা সদরঘাট যান ঘুমিয়ে!

রাজধানীর গুলিস্তান থেকে সদরঘাট পর্যন্ত মাত্র তিন কিলোমিটার পথ। আর এই পথের অনেক যাত্রী বাসে উঠেই ঘুমিয়ে পড়েন। এর কারণ জানতে চাইলে  যাত্রীরা জানায়, এই পথে যেতে কমপক্ষে পাঁচবার ট্রাফিক সিগন্যালে পড়তে হয়। আর এতেই কেটে যায় এক থেকে দেড় ঘণ্টা। তাই অনেকে এই সময়ে ঘুমিয়ে পড়ে। আরমান  হেকিম নামে এক যাত্রী জানান, যে পথ হেঁটে পাড়ি দিতে সময় লাগে ৩০ থেকে ৩৫ মিনিট। সেই পথ বাসে পাড়ি দিতে লাগে এক ঘণ্টার বেশি সময়। এই রুটে সবচেয়ে বেশি যানজট থাকে রোববার থেকে বৃহস্পতিবার পর্যন্ত।

বিনোদন

সিনেমা হল কেন দর্শকশূন্য, জানালেন পূর্ণিমা

সিনেমা হল কেন দর্শকশূন্য, জানালেন পূর্ণিমা

ঢাকাই চলচ্চিত্রের অন্যতম জনপ্রিয় মুখ পূর্ণিমা। বর্তমানে মানুষ কেন সিনেমা হলে যায় না, এই প্রসঙ্গে বাংলাদেশ টাইমস প্রতিনিধির কাছে মুখ খুললেন তিনি।