• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • শনিবার, ০৪ জুলাই ২০২০, ২০ আষাঢ় ১৪২৭

‘ডাইং ডিক্লারেশনে’ যা বললেন অগ্নিদগ্ধ মাদ্রাসা ছাত্রী

‘ডাইং ডিক্লারেশনে’ যা বললেন অগ্নিদগ্ধ মাদ্রাসা ছাত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক০৮ এপ্রিল ২০১৯, ০৫:৪০পিএম, ঢাকা-বাংলাদেশ।

ফেনীর সোনাগাজীর অগ্নিদগ্ধ মাদ্রাসা ছাত্রী নুসরাত জাহান রাফিকে (১৮) সোমবার  ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়েছে।

তবে লাইফ সাপোর্টে নেয়ার আগে ওই মাদ্রাসা ছাত্রী 'ডাইং ডিক্লারেশন' (মৃত্যুশয্যায় দেয়া বক্তব্য) দিয়েছেন। তিনি তার বক্ত‌ব্যে বলেছেন, নেকাব, বোরকা, হাতমোজা প‌রি‌হিত চারজন তার গা‌য়ে আগুন ধ‌রি‌য়ে দেয়। ওই চারজ‌নের একজনের নাম ছিল শম্পা।

ঢাকা মেডিকেল ক‌লেজের বার্ন ও প্লা‌স্টিক সার্জারি ইউনি‌ট সূত্র ত‌থ্যের সত্যতা নি‌শ্চিত ক‌রে‌ছে। দুজন সাক্ষীর উপস্থিতিতে ওই ছাত্রী একজন চি‌কিৎস‌কের কা‌ছে বক্তব্য দেন। মুমূর্ষু রোগী‌দের কাছ থে‌কে এ ধর‌নের বক্তব্য নেওয়া হ‌য়ে থা‌কে, যা পরবর্তী‌ সময়ে আদাল‌তে সাক্ষ্য হি‌সে‌বে ব্যবহার হ‌য়ে থা‌কে।

ছ‌াত্রীকে উদ্ধৃত ক‌রে সূত্রটি জানা‌চ্ছে, ক‌য়েক বছর ধ‌রে মাদ্রাসার অধ্যক্ষ নারী শিক্ষার্থী‌দের হয়রা‌নি ক‌রে আস‌ছেন। তি‌নি পরীক্ষার আগে প্রশ্নপত্র দি‌য়ে দেয়ার প্রলোভন দেখা‌তেন। তার কথায় রা‌জি না হ‌লে তি‌নি হেনস্থা ক‌রতেন। আগে এ বিষ‌য়ে প‌রিবার‌কে না জানা‌লেও, গত ২৭ মার্চ তার স‌ঙ্গে অধ্যক্ষ অশোভন আচরণ ক‌রেন। এ বিষয়টি ওই শিক্ষার্থী প‌রিবার‌কে জানান, মাদ্রাসার অন্য শিক্ষার্থী‌দেরও জানান। অধ্যক্ষের বিরু‌দ্ধে মামলা হওয়ার পর থে‌কে তি‌নি ভাই‌য়ের স‌ঙ্গে মাদ্রাসায় যা‌চ্ছি‌লেন। ঘটনার দিন তার ভাইকে ভেত‌রে ঢুক‌তে দেয়া হয়‌নি।

ওই ছাত্রী বলেন, কেন্দ্রে ঢোকার পর একটা সময় তাকে ছা‌দে ডে‌কে নি‌য়ে যাওয়‌া হয়। তি‌নি নেকাব বোরকা হাত মোজা প‌রি‌হিত চারজন‌কে দেখ‌তে পান। তাদের ম‌ধ্যে মূলত কথা বল‌ছি‌লেন একজন। তি‌নি মামলা প্রত্যাহার ক‌রে নি‌তে ব‌লেন এবং অধ্যক্ষের বিরু‌দ্ধে অভি‌যোগ অসত্য এ কথা বল‌তে চাপ দেন। মাদ্রাসা ছাত্রী এতে অস্বীকৃ‌তি জানা‌লে ওই চারজন ওড়না দি‌য়ে তার হাত বেঁধে ফে‌লেন। তার গ‌া‌য়ে ওরা কিছু একটা ছু‌ড়ে দেয়। তারপর ব‌লে, ‘যা এবার পালা।’ গা‌য়ে আগুন লাগা অবস্থা‌তেই তি‌নি দৌঁড়ে পালান।

চারজ‌নের কেউ কারও নাম উচ্চারণ না কর‌লেও কো‌নো এক পর্যা‌য়ে একজন শম্পা ব‌লে একজন‌কে ডা‌কেন। তি‌নি যে কণ্ঠ শু‌নে‌ছেন, তা নারীকণ্ঠ। ত‌বে মুখ ঢাকা থাকায় কাউকে চিন‌তে পা‌রেন‌নি ব‌লে জা‌নি‌য়ে‌ছেন।

অগ্নিদগ্ধ ওই ছাত্রী বলেন, ওড়নাটা ছাই হয়ে যাওয়ার পর হাতের বাঁধন খুলে যায়।

গত শনিবার সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসায় আলিম পরীক্ষা দিতে গেলে কৌশলে মেয়েটিকে ছাদে ডেকে নিয়ে গিয়ে মেয়েটির গায়ে আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয়। গত ২৭ মার্চ অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে যৌন নিপীড়নের অভিযোগে মামলা করেন মেয়েটির মা। মামলা প্রত্যাহারে রাজি না হওয়ায় ছাত্রীটির গায়ে আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয়। ওই দিনই গুরুতর আহত অবস্থায় ওই মাদ্রাসা ছাত্রীকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়।

 

 

টাইমস/এসআই

করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছেই, আরও ২৯ জনের মৃত্যু

করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছেই, আরও ২৯ জনের মৃত্যু

দেশে প্রতিদিনই বাড়ছে করোনায় আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। গত ২৪

ঈদের আগেই শ্রমিকের বেতন-ভাতা পরিশোধ করুন -কাদের

ঈদের আগেই শ্রমিকের বেতন-ভাতা পরিশোধ করুন -কাদের

ঈদুল আজহার আগেই পোশাক শিল্পসহ অন্যান্য ক্ষেত্রে কর্মরত শ্রমিকদের বেতন-ভাতা

বিশ্ববিদ্যালয়ে চান্স পেয়েও ভর্তি হতে না পারা ছেলেটি এখন বিসিএস ক্যাডার!

বিশ্ববিদ্যালয়ে চান্স পেয়েও ভর্তি হতে না পারা ছেলেটি এখন বিসিএস ক্যাডার!

আল আমিন (নাফিস)। ৩৮ তম বিসিএসে আনসার ক্যাডারে সুপারিশপ্রাপ্ত হয়েছেন।

জাতীয়

বিএসএফের সঙ্গে তর্ক করায় বাংলাদেশীকে গুলি করে হত্যা

বিএসএফের সঙ্গে তর্ক করায় বাংলাদেশীকে গুলি করে হত্যা

সীমান্তে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর বেপরোয়া ভাব থামছেই না। প্রতিদিনই কোনো না কোনো বাংলাদেশীকে নির্বিচারে গুলি করে হত্যা করছে বিএসএফ। এনিয়ে বাংলাদেশ সরকারের পক্ষ্য থেকেও কোনো প্রতিক্রিয়া দেখানো হচ্ছে না। এতে করে আরও পেয়ে বসেছে বিএসএফ। সীমান্তে বেড়েই চলেছে বিএসএফের বর্বরতা।

আন্তর্জাতিক

মহাযুদ্ধের বার্তা, চীন সাগরে যুদ্ধজাহাজ পাঠাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

মহাযুদ্ধের বার্তা, চীন সাগরে যুদ্ধজাহাজ পাঠাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

চীন-ভারত সীমান্ত উত্তেজনা তুঙ্গে। আগ্রাসী চীনের সামনে ভারত যেন নাবালক শিশু। তাই ভারত শেষমেষ যুক্তরাষ্ট্রের কাছেই নালিশ নিয়ে হাজির। যুক্তরাষ্ট্রও ভারতের ডাকে সাড়া দিয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও সম্প্রতি জানিয়েছেন, চীনের আগ্রাসন রুখতে ভারতীয় অঞ্চলে মার্কিন সেনা পাঠানো হবে।

জাতীয়

করোনায় এবার বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিবের মৃত্যু

করোনায় এবার বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিবের মৃত্যু

এবার প্রাণঘাতি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব খুরশীদ আলমের মৃত্যু হয়েছে। ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন।

আন্তর্জাতিক

সন্ত্রাসী ইসরাইল রাষ্ট্রকে  রুখতে হবে  -মাহাথির

সন্ত্রাসী ইসরাইল রাষ্ট্রকে রুখতে হবে -মাহাথির

ইহুদিদের বর্বরত থেকে ফিলিস্তিনিদের বাঁচাতে মধ্যপ্রাচ্যে মুসলিমদের মধ্যে ঐক্য প্রতিষ্ঠা জরুরি বলে মন্তব্য করেছেন মাহাথির মোহাম্মদ। ইসরাইল মুসলমানদের শত্রু বলেও উল্লেখ করেছেন মালয়েশিয়ার সাবেক এই প্রধানমন্ত্রী।

চাকরি

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় থেকে হাওরকন্যার স্বপ্নজয়ের গল্প

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় থেকে হাওরকন্যার স্বপ্নজয়ের গল্প

হাওরের আলো বাতাসে বড় হয়েছেন পায়রা চৌধুরীর। শৈশব কেটেছে নেত্রকোনার মদনে হাওরের প্রত্যন্ত অঞ্চল ফতেপুর গ্রামে। পড়াশোনা করেছেন

স্বাস্থ্য

হাই ব্লাড প্রেসারে ভয়াবহ হতে পারে কোভিড সংক্রমণ

হাই ব্লাড প্রেসারে ভয়াবহ হতে পারে কোভিড সংক্রমণ

দীর্ঘদিন ধরে রক্তচাপজনিত অসুখ বা হাই ব্লাড প্রেসারের সমস্যায় ভুগছেন, এসব ব্যক্তির ক্ষেত্রে লিঙ্গ, বয়স নির্বিশেষে সংক্রমণের ঝুঁকি অনেকটাই বেশি। তাদের ক্ষেত্রে ঝুঁকি কেন বেশি, এই নিয়ে ক্লিনিক্যাল মেডিসিন জার্নালের রিসার্চ বলছে, উচ্চ রক্তচাপ মানেই রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম। তাই ভাইরাস যুদ্ধে জয়ের সম্ভাবনাও কম।