• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • শুক্রবার, ১০ এপ্রিল ২০২০, ২৬ চৈত্র ১৪২৬

‘ডাইং ডিক্লারেশনে’ যা বললেন অগ্নিদগ্ধ মাদ্রাসা ছাত্রী

‘ডাইং ডিক্লারেশনে’ যা বললেন অগ্নিদগ্ধ মাদ্রাসা ছাত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক০৮ এপ্রিল ২০১৯, ০৫:৪০পিএম, ঢাকা-বাংলাদেশ।

ফেনীর সোনাগাজীর অগ্নিদগ্ধ মাদ্রাসা ছাত্রী নুসরাত জাহান রাফিকে (১৮) সোমবার  ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে লাইফ সাপোর্টে রাখা হয়েছে।

তবে লাইফ সাপোর্টে নেয়ার আগে ওই মাদ্রাসা ছাত্রী 'ডাইং ডিক্লারেশন' (মৃত্যুশয্যায় দেয়া বক্তব্য) দিয়েছেন। তিনি তার বক্ত‌ব্যে বলেছেন, নেকাব, বোরকা, হাতমোজা প‌রি‌হিত চারজন তার গা‌য়ে আগুন ধ‌রি‌য়ে দেয়। ওই চারজ‌নের একজনের নাম ছিল শম্পা।

ঢাকা মেডিকেল ক‌লেজের বার্ন ও প্লা‌স্টিক সার্জারি ইউনি‌ট সূত্র ত‌থ্যের সত্যতা নি‌শ্চিত ক‌রে‌ছে। দুজন সাক্ষীর উপস্থিতিতে ওই ছাত্রী একজন চি‌কিৎস‌কের কা‌ছে বক্তব্য দেন। মুমূর্ষু রোগী‌দের কাছ থে‌কে এ ধর‌নের বক্তব্য নেওয়া হ‌য়ে থা‌কে, যা পরবর্তী‌ সময়ে আদাল‌তে সাক্ষ্য হি‌সে‌বে ব্যবহার হ‌য়ে থা‌কে।

ছ‌াত্রীকে উদ্ধৃত ক‌রে সূত্রটি জানা‌চ্ছে, ক‌য়েক বছর ধ‌রে মাদ্রাসার অধ্যক্ষ নারী শিক্ষার্থী‌দের হয়রা‌নি ক‌রে আস‌ছেন। তি‌নি পরীক্ষার আগে প্রশ্নপত্র দি‌য়ে দেয়ার প্রলোভন দেখা‌তেন। তার কথায় রা‌জি না হ‌লে তি‌নি হেনস্থা ক‌রতেন। আগে এ বিষ‌য়ে প‌রিবার‌কে না জানা‌লেও, গত ২৭ মার্চ তার স‌ঙ্গে অধ্যক্ষ অশোভন আচরণ ক‌রেন। এ বিষয়টি ওই শিক্ষার্থী প‌রিবার‌কে জানান, মাদ্রাসার অন্য শিক্ষার্থী‌দেরও জানান। অধ্যক্ষের বিরু‌দ্ধে মামলা হওয়ার পর থে‌কে তি‌নি ভাই‌য়ের স‌ঙ্গে মাদ্রাসায় যা‌চ্ছি‌লেন। ঘটনার দিন তার ভাইকে ভেত‌রে ঢুক‌তে দেয়া হয়‌নি।

ওই ছাত্রী বলেন, কেন্দ্রে ঢোকার পর একটা সময় তাকে ছা‌দে ডে‌কে নি‌য়ে যাওয়‌া হয়। তি‌নি নেকাব বোরকা হাত মোজা প‌রি‌হিত চারজন‌কে দেখ‌তে পান। তাদের ম‌ধ্যে মূলত কথা বল‌ছি‌লেন একজন। তি‌নি মামলা প্রত্যাহার ক‌রে নি‌তে ব‌লেন এবং অধ্যক্ষের বিরু‌দ্ধে অভি‌যোগ অসত্য এ কথা বল‌তে চাপ দেন। মাদ্রাসা ছাত্রী এতে অস্বীকৃ‌তি জানা‌লে ওই চারজন ওড়না দি‌য়ে তার হাত বেঁধে ফে‌লেন। তার গ‌া‌য়ে ওরা কিছু একটা ছু‌ড়ে দেয়। তারপর ব‌লে, ‘যা এবার পালা।’ গা‌য়ে আগুন লাগা অবস্থা‌তেই তি‌নি দৌঁড়ে পালান।

চারজ‌নের কেউ কারও নাম উচ্চারণ না কর‌লেও কো‌নো এক পর্যা‌য়ে একজন শম্পা ব‌লে একজন‌কে ডা‌কেন। তি‌নি যে কণ্ঠ শু‌নে‌ছেন, তা নারীকণ্ঠ। ত‌বে মুখ ঢাকা থাকায় কাউকে চিন‌তে পা‌রেন‌নি ব‌লে জা‌নি‌য়ে‌ছেন।

অগ্নিদগ্ধ ওই ছাত্রী বলেন, ওড়নাটা ছাই হয়ে যাওয়ার পর হাতের বাঁধন খুলে যায়।

গত শনিবার সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসায় আলিম পরীক্ষা দিতে গেলে কৌশলে মেয়েটিকে ছাদে ডেকে নিয়ে গিয়ে মেয়েটির গায়ে আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয়। গত ২৭ মার্চ অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে যৌন নিপীড়নের অভিযোগে মামলা করেন মেয়েটির মা। মামলা প্রত্যাহারে রাজি না হওয়ায় ছাত্রীটির গায়ে আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয়। ওই দিনই গুরুতর আহত অবস্থায় ওই মাদ্রাসা ছাত্রীকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়।

 

 

টাইমস/এসআই

করোনা: ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত ১১২, একজনের মৃত্যু

করোনা: ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত ১১২, একজনের মৃত্যু

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন আরও

প্রস্তুত ফাঁসির মঞ্চ, যেকোনো সময় কার্যকর মাজেদের ফাঁসি

প্রস্তুত ফাঁসির মঞ্চ, যেকোনো সময় কার্যকর মাজেদের ফাঁসি

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে সপরিবারে হত্যা মামলার ফাঁসির

কমলো ব্যাংকের লেনদেন সময়

কমলো ব্যাংকের লেনদেন সময়

প্রাণঘাতি করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে চলমান সাধারণ ছুটির সময় দেশের তফসিলি

জাতীয়

চট্টগ্রামে ব্যাংক এশিয়ার শাখা লকডাউন: কোয়ারেন্টাইনে ১৫ জন

চট্টগ্রামে ব্যাংক এশিয়ার শাখা লকডাউন: কোয়ারেন্টাইনে ১৫ জন

চট্টগ্রাম নগরের হালিশহরে শনাক্ত হওয়া এক করোনা রোগী যাতায়াত করায় ব্যাংক এশিয়ার আন্দরকিল্লা শাখা লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে। ওই শাখার ১৫ জন কর্মকর্তা-কর্মচারীদের হোম কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হয়েছে।

জাতীয়

করোনায় আক্রান্ত হাতিয়ার এক চিকিৎসক

করোনায় আক্রান্ত হাতিয়ার এক চিকিৎসক

নোয়াখালীর বিচ্ছিন্ন দ্বীপ উপজেলা হাতিয়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের এক চিকিৎসক করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার দুপুরে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন হাতিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা: নাজিম উদ্দিন।

আন্তর্জাতিক

করোনায় বেসামাল সৌদি রাজপরিবার : আক্রান্ত ১৫০

করোনায় বেসামাল সৌদি রাজপরিবার : আক্রান্ত ১৫০

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের হানা যেন থামছে না। হর হামেশাই মৃত্যুর মিছিলে যুক্ত হচ্ছে হাজার হাজার মানুষ। এই ভাইরাসের কারণে দিশেহারা বিশ্বের বাঘা বাঘা রাষ্ট্র নায়করা। অন্যান্য দেশের মতো করোনার বিষাক্ত ছোবল পড়েছে সৌদি আরবেও। এর মধ্যেই দেশটিতে আক্রান্তের সংখ্যা ৩ হাজার ছাড়িয়ে গেছে। করোনার এই থাবায় বেসামাল হয়ে পড়েছে সৌদি রাজপরিবার। ওই পরিবারের দেড়শ সদস্যের শরীরে করোনা শনাক্ত হয়েছে। পারিবারিক সূত্রের বরাতে এ খবর দিয়েছে নিউইয়র্ক টাইমস।

জাতীয়

নারায়ণগঞ্জের ডিসির করোনা শনাক্ত হয়নি

নারায়ণগঞ্জের ডিসির করোনা শনাক্ত হয়নি

নারায়ণগঞ্জের জেলা প্রশাসক জসিম উদ্দিনের করোনাভাইরাস আক্রান্ত হননি। করোনা সন্দেহে তার নমুনা পরীক্ষার পর রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে।

জাতীয়

করোনায় দাদির মৃত্যু: কুমিল্লায় দুই শিশুও আক্রান্ত

করোনায় দাদির মৃত্যু: কুমিল্লায় দুই শিশুও আক্রান্ত

করোনায় ঢাকায় দাদির মৃত্যুর পর কুমিল্লার বুড়িচং উপজেলায় এসে দুই শিশুও করোনায় আক্রান্ত হয়েছে। তাদের একজনের বয়স সাত বছর ও অন্যজনের বয়স পাঁচ।

স্বাস্থ্য

করোনায় আক্রান্তদের মধ্যে যাদের ভেন্টিলেটর প্রয়োজন

করোনায় আক্রান্তদের মধ্যে যাদের ভেন্টিলেটর প্রয়োজন

বিশ্বব্যাপী মহামারি আকারে ছড়িয়ে পড়েছে করোনাভাইরাস। প্রতিদিন মানুষের মৃত্যুর ঘটনা ঘটছে। রাশ টানা যাচ্ছে না এ মহামারির। সাধারণত শুষ্ক কাশি ও জ্বরের মাধ্যমেই শুরু হয় করোনাভাইরাসের উপসর্গ, পরে শ্বাস প্রশ্বাসে সমস্যা দেখা দেয়। এই ভাইরাস জনিত কোভিড-১৯ রোগে আক্রান্তদের ভেন্টিলেটরের (কৃত্রিমভাবে স্বাস্থ্য প্রশ্বাস নেয়ার যন্ত্র) মাধ্যমে চিকিৎসা দেয়ার কথা বলছেন চিকিৎসকরা। চিকিৎসকদের মতে, যেসব রোগীর শ্বাস-প্রশ্বাসে সমস্যা হয়, গলাব্যথা, নিউনোমিয়ার প্রকোপ বেড়ে যায়, রোগীর জীবন যখন সংকটাপন্ন হয়ে পড়ে, তখন তার জন্য ভেন্টিলেটর ব্যবহার করা জরুরি।