• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • সোমবার, ১৬ ডিসেম্বর ২০১৯, ২ পৌষ ১৪২৬
ছেলের শোকে মায়ের স্ট্যাটাস, আমার এ লেখাটিও কি গুজব!

ছেলের শোকে মায়ের স্ট্যাটাস, আমার এ লেখাটিও কি গুজব!

ডেঙ্গু জ্বরে আমি আমার প্রাণের অধিক প্রিয় একমাত্র ছেলে-কে হারালাম!!!! এখন, আমিও ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে গত ছয় দিন ধরে হাসপাতালের bed এ কাতরাচ্ছি !! আমার মেয়ের ২ বছর বয়সে ১ বার ডেঙ্গু হয়েছিল ! আপনি কি নিশ্চয়তা দিতে পারেন আমার মেয়ের আর ডেঙ্গু হবে না ?! সদ্য ছোট ভাই হারানো আমার ছোট্ট মেয়ে তার মাকেও যখন হাসপাতালের bed -এ দেখছে তখন তার মনের অবস্হা অনুধাবন করার অনুভূতি কি আল্লাহপাক আপনাকে দিয়েছেন ?

বিস্তারিত
ডেঙ্গুতে আরো ৪ জনের মৃত্যু, ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত ২০৬৫

ডেঙ্গুতে আরো ৪ জনের মৃত্যু, ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত ২০৬৫

শুক্রবার জ্বর নিয়ে জয়পুরহাট জেলা আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি হন আবহাওয়া অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক নাজমুল হকের সাত মাসের অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী শারমিন আক্তার। পরীক্ষায় তার ডেঙ্গু ধরা পড়ে।রক্তের প্লাটিলেট না বাড়ায়, শনিবার তাকে রাজধানীর শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিক্যালে ভর্তি করা হয়।সেখানে তিনি আইসিইউতে ছিলেন। সোমবার ভোরে শারমীনের মৃত্যু হয়।

বিস্তারিত
ধূমপান কমাতে নতুন নীতিমালা ফেসবুকের

ধূমপান কমাতে নতুন নীতিমালা ফেসবুকের

‘নীতিমাল আনুযায়ী ফেসবুকে যেসব গ্রুপ থেকে অ্যালকোহল ও ট্যোব্যাকো বিক্রয় সংক্রান্ত পোস্ট দেওয়া হয় সেগুলো বন্ধ করা হবে।একটি কোম্পানীর একজন প্রতিনিধি সিএনএনকে জানান, সামাজিক নেটওয়ার্কগুলির গ্রুপ অ্যাডমিনদের কাছে ইতোমধ্যে এ সংক্রান্ত সতর্কতা পৌঁছে গেছে। সংস্থাটি নতুন নিয়মাবলী কার্যকর করছে। যদি কেউ এরপরও তাদের বিজ্ঞাপণ তুলে না নেয় তবে তা সরিয়ে ফেলা হবে’।

বিস্তারিত
ডেটিংয়ের প্রথম দিনই ডিএনএ জানাতে হয় যে দেশে

ডেটিংয়ের প্রথম দিনই ডিএনএ জানাতে হয় যে দেশে

সাধারণত প্রথম ডেটিংয়ে তরুণ-তরুণীর আলোচনায় গুরুত্ব পায় প্রিয় শখ বা মুভির বিষয়। প্রেমের আগে প্রথম সাক্ষাতে মানুষ এমন সব হালকা, সাধারণ বিষয় নিয়েই আলাপ চালিয়ে যায়। তবে নাইজেরিয়ার বিষয়টি একটু ভিন্ন। কেননা সেখানে প্রথম সাক্ষাতেই আলোচনা হয় শরীরের ডিএনএ নিয়ে। যদিও এটি কেবল ‘গ্রেস অ্যানাটমি’তে ছুটি কাটাতে যেতে চাওয়াদের ক্ষেত্রে হয়ে থাকে।

বিস্তারিত
রক্ত দেয়ার ক্ষেত্রে প্রচলিত ভ্রান্ত ধারণা ও বাস্তবতা

রক্ত দেয়ার ক্ষেত্রে প্রচলিত ভ্রান্ত ধারণা ও বাস্তবতা

২০১৮ সালে যদি এককালীন রক্তদাতারা আরো একবার রক্ত দিতেন তবে সংগ্রহ গিয়ে দাঁড়াতো ১ লাখ ৩০ হাজার ইউনিটের কাছাকাছি। যা স্থানীয় চাহিদা পূরণের জন্য কেবল যথেষ্টই নয়, আরো অতিরিক্ত থাকতো। আর যদি প্রত্যেক দাতা (নিয়মিত, অনিয়মিত) আরো একবার করে দিত তবে সংগ্রহ হত ১ লাখ ৭০ হাজার ইউনিটেরও বেশি। যা হতে পারতো গত ১ দশকের মধ্যে সবচেয়ে বেশি।

বিস্তারিত
যে ৫ খাবার শরীরে প্লাটিলেট বাড়ায়

যে ৫ খাবার শরীরে প্লাটিলেট বাড়ায়

সাউথ টেক্সাস ব্লাড অ্যান্ড টিস্যু সেন্টার বলছে- আপনার যদি প্লাটিলেট স্তর নিন্মগামী থাকে বা থ্রোমোসাইটোপেনিয়া থাকে তা আপনার দেহে রক্ত জমাট বাঁধার ক্ষমতাকে কমিয়ে দেয়। তবে খাবারে ফোলেট, আয়রন, ভিটামিন বি -১২, ভিটামিন ‘সি’ এবং ভিটামিন ‘ডি’ বেশি পরিমাণে খেলে এ প্লাটিলেট খুব অল্প সময়েই আবার বাড়ানো যায়।

বিস্তারিত
ডেঙ্গুজ্বরের লক্ষণ ও প্রতিরোধে করণীয়

ডেঙ্গুজ্বরের লক্ষণ ও প্রতিরোধে করণীয়

বাংলাদেশে ডেঙ্গুজ্বরের প্রাদুর্ভাব অনেক আগে থেকে। প্রায় প্রতি বর্ষাতেই কমবেশি লোকের ডেঙ্গুজ্বর হয়ে থাকে। এবছর দেশে ডেঙ্গুজ্বর বলতে গেলে মহামারি আকার ধারণ করেছে। রাজধানী ঢাকা ছাড়িয়ে ডেঙ্গু এখন দেশের বিভিন্ন এলাকাতে ছড়িয়ে পড়ছে।

বিস্তারিত
মশা নিধনে অভূতপূর্ব সাফল্য চীনের

মশা নিধনে অভূতপূর্ব সাফল্য চীনের

মূলত প্রাণসংহারী রোগ ঠেকাতে দেশটিতে মশা প্রতিরোধে মশার ব্যবহারের যে প্রকল্প নেওয়া হয়েছিলো এটি তারই ধারাবাহিকতা। ২০১৬ সালে নেওয়া ওই প্রকল্পের বিষয়ে এই গবেষক গণমাধ্যমকে জানিয়েছিলেন, খারাপ মশার বিরুদ্ধে যুদ্ধ করতে ওই ফ্যাক্টরীতে ভাল মশা উৎপাদন করা হবে। যার মধ্যে ব্যাক্টেরিয়ার প্রবেশের সাহায্যে স্ত্রী মশার প্রজননে আনা হবে পরিবর্তন। এভাবেই মশাগুলো হবে জীবানুমুক্ত।  

বিস্তারিত
খাবারের মাধ্যমে যেভাবে ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপ ও রক্তে কোলেস্টেরলের মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করবেন

খাবারের মাধ্যমে যেভাবে ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপ ও রক্তে কোলেস্টেরলের মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করবেন

ডায়াবেটিস একটি হরমোনজনিত রোগ। দেহযন্ত্র অগ্ন্যাশয় যদি যথেষ্ট ইনসুলিন তৈরি করতে না পারে অথবা শরীর যদি উৎপন্ন ইনসুলিন ব্যবহারে ব্যর্থ হয়, তাহলে যে রোগ হয় তা হল ডায়াবেটিস বা বহুমূত্র রোগ।

বিস্তারিত
ক্যান্সারে ধূমপানের চেয়েও ক্ষতিকর স্থূলতা  

ক্যান্সারে ধূমপানের চেয়েও ক্ষতিকর স্থূলতা  

ক্যান্সার রিসার্চ ইউকের দাবি, ব্রিটেনে প্রতিরোধ যোগ্য ক্যান্সারের জন্য এখন প্রধান কারণ হয়ে আছে ধূমপান। আর দ্বিতীয় অবস্থানে অবশ্যই স্থূলতা। কিন্তু অবাক করা বিষয় হলো দেশটিতে ধূমপানের হার যখন কমে আসছে ঠিক তখনই মুঠিয়ে যাওয়া বা স্থুলতা বাড়ছে। এ বিষয়টি ভাবিয়ে তুলছে দেশটির চিকিৎসা বিজ্ঞানীদেরও।

বিস্তারিত