• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • মঙ্গলবার, ১২ নভেম্বর ২০১৯, ২৮ কার্তিক ১৪২৬

রাজনীতিতে বাড়ছে নারীর ক্ষমতায়ন

রাজনীতিতে বাড়ছে নারীর ক্ষমতায়ন

নিজস্ব প্রতিবেদক০১ জানুয়ারি ২০১৯, ০৮:২৫পিএম, ঢাকা-বাংলাদেশ।

সারাবিশ্বে বাংলাদেশ একটি চিরচেনা স্বাধীন রাষ্ট্র হিসাবে পরিচিতি লাভ করলেও বর্তমানে অন্য একটি নামে পরিচিতি লাভ করেছে। সেটি হলো বাংলাদেশে নারীদের ক্ষমতায়ন। একাদশ নির্বাচনে নারীদের ক্ষমতায়নে গনতন্ত্রের এক উজ্জ্বল নজির গড়লো বাংলাদেশ।

১৯৭১ সাল থেকেই নারীরা বাংলাদেশে নানা গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করেছে। তারা সামাজিক, রাজনৈতিক, সাহিত্যিক, প্রতিষ্ঠানিক বিভিন্ন পদে দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছে। বর্তমানে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন যেন জানান দিচ্ছে বাংলাদেশে নারীদের ক্ষমতায়নের সেই কথা গুলোই। এ নির্বাচনে নারী এমপি হিসাবে ২২ জন সংসদ সদস্য শপথ নিবেন।

আমাদের পাশের রাষ্ট্র ভারতে বর্তমান সময়ে মহিলা মুখ্যমন্ত্রীর সংখ্যা চার জন। পশ্চিমবঙ্গ- মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, রাজস্থান- বসুন্ধরা রাজে, গুজরাট-আনন্দীবেন প্যাটেল, তামিলনাড়ু- জয়ললিতা। সারা ভারতের ২৯ বিধানসভায় সর্বমোট মহিলা মন্ত্রীর সংখ্যা মাত্র ৩৯। যেখানে পুরুষদের সংখ্যা ৫৫৬ জন।

ইউরোপের ১৭টি দেশের (মোনাকোসহ) জাতীয় আইনসভার ৩০ শতাংশের বেশি সদস্য নারী। ২০১৭ সালে পৃথিবীর নানা দেশে নির্বাচনে রেকর্ড সংখ্যায় নারী ভোটে দাঁড়িয়েছিলেন। কিন্তু তখন তেমন বড় ধরনের কোনও সাফল্য ছিলনা। নারী এমপিদের সংখ্যার দিক থেকে এগিয়ে যায় ইউরোপ, কিন্তু একইসঙ্গে বড় ধরনের পরাজয়ের রেকর্ডও গড়ে।

২০১৭ সালের জুন মাসে ফ্রান্সের পার্লামেন্টে রেকর্ড সংখ্যায় নারীদের নির্বাচিত করা হয়, ন্যাশনাল এসেম্বলির ৫৭৭ পদের মধ্যে ২২৩টি পায় নারীরা।

স্পেনের প্রধানমন্ত্রী পেড্রো সানচেয তার ১৭ জনের শক্তিশালী মন্ত্রিসভা সদস্যদের মধ্যে ১১জনই বাছাই করেছেন নারীদের মধ্য থেকে। তিনি বলেন তার নতুন মন্ত্রিসভা “সেই একই দৃষ্টিভঙ্গি বহন করে যেখানে প্রগতিশীল সমাজের কথা ভাবা হচ্ছে যা একসঙ্গে আধুনিক এবং প্রো-ইউরোপিয়ান।”

২১ বছর পরে তালিকার শীর্ষে থাকা দেশগুলোর ক্ষেত্রে আরও বৈচিত্র্য এসেছে এবং স্ক্যান্ডিনেভিয়ান দেশগুলোকে টপকে যায় রুয়ান্ডা এবং মধ্য ও দক্ষিণ আমেরিকার কিছু দেশ ।

বলিভিয়া, গ্রেনাডা, মেক্সিকো, নিকারাগুয়া, কোস্টারিকা এবং কিউবার ক্যারিবীয় দ্বীপপুঞ্জ এগুলো সবই শীর্ষ দশম অবস্থানে আছে যেখানে নারী সংসদ সদস্য সংখ্যা ৪০ শতাংশের বেশি।

 

টাইমস/এসআর/এইচইউ

সিগন্যাল অমান্য করায় ট্রেন দুর্ঘটনা, চালকসহ তিনজন বরখাস্ত

সিগন্যাল অমান্য করায় ট্রেন দুর্ঘটনা, চালকসহ তিনজন বরখাস্ত

ট্রেনের চালক সিগন্যাল অমান্য করে ভুল লাইনে চলে যাওয়ার কারণেই

দুই ট্রেনের সংঘর্ষে নিহত ১৬

দুই ট্রেনের সংঘর্ষে নিহত ১৬

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবা উপজেলায় দুই ট্রেনের মধ্যে সংঘর্ষে অন্তত ১৬ জন

আট ঘণ্টা পর ঢাকা-চট্টগ্রাম-সিলেটে ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক

আট ঘণ্টা পর ঢাকা-চট্টগ্রাম-সিলেটে ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক

প্রায় আট ঘণ্টা বন্ধ থাকার পর ঢাকা-চট্টগ্রাম ও চট্টগ্রাম-সিলেট রুটে

জাতীয়

"নিহতদের পরিবারকে ১ লাখ ২৫ হাজার করে টাকা দেয়া হবে"

"নিহতদের পরিবারকে ১ লাখ ২৫ হাজার করে টাকা দেয়া হবে"

রেলপথ মন্ত্রী নূরুল ইসলাম সুজন বলেছেন, নিহতের পরিবারের ক্ষতি টাকা দিয়ে পূরণ করা সম্ভব না। তারপরও রেলপথ মন্ত্রণালয় থেকে নিহতদের প্রত্যেকের পরিবারকে ১ লাখ করে টাকা এবং জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে ২৫ হাজার টাকা করে দেয়া হবে।

জাতীয়

নোয়াখালী বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের ১৬ নেতাকর্মী বহিষ্কার   

নোয়াখালী বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের ১৬ নেতাকর্মী বহিষ্কার  

শাখা ছাত্রলীগের ১৬ নেতাকর্মীকে সাময়িক বহিষ্কার করেছে নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (নোবিপ্রবি) প্রশাসন। ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের সংঘর্ষে আবাসিক হল ভাঙচুর ও শিক্ষকের ওপর হামলার ঘটনায় তাদেরকে ছয় মাসের জন্য বহিষ্কার করা হয়েছে।

জাতীয়

ঝিনাইদহে ট্রাকের ধাক্কায় স্ত্রী নিহত, হাসপাতালে স্বামী   

ঝিনাইদহে ট্রাকের ধাক্কায় স্ত্রী নিহত, হাসপাতালে স্বামী  

ঝিনাইদহের গোয়ালপাড়া বাজারে ট্রাক চাপায় এক নারীর মৃত্যু হয়েছে। এ দুর্ঘটনায় নিহতের স্বামীসহ দুইজন আহত হয়েছে। মঙ্গলবার সকাল ১০টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। ঝিনাইদহ ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার দিলীপ কুমার সরকার দুর্ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

বিনোদন

ঢাকা লিট ফেস্টে নাচানাচি; পক্ষে-বিপক্ষে মত

ঢাকা লিট ফেস্টে নাচানাচি; পক্ষে-বিপক্ষে মত

বাংলা একাডেমি প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত ঢাকা লিট ফেস্টের নবম আসরে একটি নাচের ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে। এ নিয়ে সমালোচনার ঝড় বইছে চতুর্দিকে। ভাইরাল হওয়া ওই ভিডিওতে দেখা যায়, কণ্ঠশিল্পী মমতাজ বেগমের ‘বন্ধু তুই লোকাল বাস’ গানের সঙ্গে নাচছেন কয়েকজন। 

জাতীয়

ফেনীতে ফাঁসির মঞ্চ নেই, কুমিল্লা ও চট্টগ্রামে যাচ্ছে নুসরাতের খুনিরা

ফেনীতে ফাঁসির মঞ্চ নেই, কুমিল্লা ও চট্টগ্রামে যাচ্ছে নুসরাতের খুনিরা

মৃত্যুদণ্ডাদেশপ্রাপ্ত সোনাগাজী ইসলামিয়া সিনিয়র ফাজিল মাদরাসার সাবেক অধ্যক্ষ এস এম সিরাজ উদ দৌলার বুধবার (১৩ নভেম্বর) আদালতে মামলার দিন ধার্য আছে। আদালতের কার্যক্রম শেষে তাকে ওই দিনই কুমিল্লা কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হবে। একই সঙ্গে ওই দিনই দণ্ডপ্রাপ্ত কামরুন নাহার মনি ও উম্মে সুলতানা ওরফে পপিকে চট্টগ্রাম কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হবে।