• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • রোববার, ০৫ জুলাই ২০২০, ২০ আষাঢ় ১৪২৭

দয়াগঞ্জে তিন রাস্তার মোড়ে শহীদ মিনারটি স্থানান্তরের দাবি

দয়াগঞ্জে তিন রাস্তার মোড়ে শহীদ মিনারটি স্থানান্তরের দাবি

তানভীর রায়হান০৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০৮:২৩পিএম, ঢাকা-বাংলাদেশ।

তিন বছর আগে স্থানীয় কিছু যুবকের উদ্যোগে যাত্রাবাড়ীর দয়াগঞ্জে তিন রাস্তার মোড়ে একটি শহীদ মিনার তৈরি করা হয়। তবে রাস্তার মাঝখানে হওয়ায় এটিকে এখন রক্ষণাবেক্ষণ করা দূরহ হয়ে পড়েছে।

এছাড়া যানবাহনের ধাক্কায় ভাষাশহীদদের জন্য নির্মিত স্মৃতিস্তম্ভটি দিন দিন ভেঙে যাচ্ছে। তাই তাদের সম্মানে শহীদ মিনারটি সরিয়ে অন্যত্র নেয়ার দাবি জানিয়েছেন এলাকাবাসী।

জানা গেছে, তিন বছর আগে মীর হাজারীবাগ ফ্রেন্ডস ক্লাবের কিছু যুবক শহীদ মিনারটি তৈরি করে। তিন রাস্তার মাঝখানে নির্মিত শহীদ মিনারের চারপাশে তখন কোনো বেষ্টনী ছিল না।

তিন মাস আগে শহীদ মিনারটি রক্ষায় এর চারপাশে ইট দিয়ে গোলচত্বর বানানো হয়। শহীদ মিনারের নিচের অংশেও চারপাশে টাইলস দিয়ে গেঁথে দেয়া হয়।

স্থানীয়রা জানান, প্রথমে কিছু যুবক ছোট আকারে শহীদ মিনারটি তৈরি করে। তবে মিনারটি তিন রাস্তার মোড়ে হওয়ায় বিভিন্নভাবে তা ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে।

তারা আরও জানান, অনেক সময় চালকরা শহীদ মিনার চত্বরে যানবাহন তুলে দেন। এতে দিন দিন শহীদ মিনারটির চারপাশ ভেঙে যাচ্ছে। 

এছাড়া তিন রাস্তার মোড়ে হওয়ায় শহীদ মিনারটি রক্ষণাবেক্ষণ করাও সম্ভব হচ্ছে না। ভেতরে অনেক আগাছা জন্মেছে, ময়লা ও আবর্জনায় ভরে গেছে চারপাশ। বছরের নির্দিষ্ট দিন ছাড়া শহীদ মিনারটির কোনো যত্ন নেয়া হয় না। তাই শহীদ মিনারটি এখান থেকে সরিয়ে অন্যত্র স্থানান্তরের দাবি জানান তারা।

মীরহাজারীবাগের আওয়ামী লীগের ৫১ নম্বর ওয়ার্ডের সভাপতি ইমতিয়াজ আহম্মেদ ডালিম বাংলাদেশ টাইমসকে বলেন, ‘শহীদ মিনারটি যখন তৈরি করা হয়, তখন আমরা কেউই জানতাম না। তিন রাস্তার টার্নিং পয়েন্টে এটি নির্মাণ করায় যে কোনো গাড়ি শহীদ মিনার চত্বরের ওপরে উঠে যায়। এতে আসলে শহীদদের প্রতি অবমাননা করা হচ্ছে।’

তিনি শহীদ মিনারটি এখান থেকে সরানোর পক্ষেও মত দেন। 

ক্ষমতাসীন দলের এ নেতা বলেন, শহীদ মিনারের পাশেই রেলওয়ের অনেক জায়গা রয়েছে। ভালো একটা জায়গায় শহীদ মিনারটি স্থানান্তর করলে এলাকাবাসী অনেক খুশি হবে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে মীর হাজারীবাগ ফ্রেন্ডস ক্লাবের সভাপতি মাহমুদুল হক সবুজ বাংলাদেশ টাইমসকে বলেন, ‘আমরা এ বিষয়ে কিছুই করতে পারবো না। তবে যা করার আওয়ামী লীগ ও ওয়ার্ড কাউন্সিলররা  করতে পারেন। তারা চাইলে এটি স্থানান্তর করতে পারেন।’

 

টাইমস/টিআর/এক্স

করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছেই, আরও ২৯ জনের মৃত্যু

করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছেই, আরও ২৯ জনের মৃত্যু

দেশে প্রতিদিনই বাড়ছে করোনায় আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। গত ২৪

বিদ্যুতের ভুতুড়ে বিল, ঢাকার চার প্রকৌশলী বরখাস্ত

বিদ্যুতের ভুতুড়ে বিল, ঢাকার চার প্রকৌশলী বরখাস্ত

ভুতুড়ে বিদ্যুৎ বিল করার অভিযোগে ঢাকা পাওয়ার ডিস্টিবিউশন কোম্পানি লিমিটেডের

করোনায় স্থগিত যশোর-বগুড়ার উপনির্বাচন ১৪ জুলাই

করোনায় স্থগিত যশোর-বগুড়ার উপনির্বাচন ১৪ জুলাই

আগামী ১৪ জুলাই যশোর-৬ ও বগুড়া-১ আসনের উপনির্বাচনের ভোটগ্রহণের তারিখ

জাতীয়

করোনায় মৃতের হিসেবে শীর্ষে যে এলাকা

করোনায় মৃতের হিসেবে শীর্ষে যে এলাকা

দেশে করোনাভাইরাস সংক্রমণের পর থেকে মৃত্যু ও আক্রান্তের সংখ্যা একই গতিতে এগিয়ে চলেছে। খুব বেশি উত্থান পতন নেই মৃত্যু ও আক্রান্তের হারে। বলা যেতে পারে, দেশে করোনায় মৃত্যু ও আক্রান্তের সংখ্যা অনেকটাই ছকে বাঁধা। তারপরও প্রতিদিনই মানুষ মরছে, আক্রান্ত হচ্ছে অনেকে।

জাতীয়

১০ ঘণ্টার ব্যবধানে পাঁচশ গজ দূরে মিলল বাবা-ছেলের লাশ

১০ ঘণ্টার ব্যবধানে পাঁচশ গজ দূরে মিলল বাবা-ছেলের লাশ

ট্রলার বোঝাই চাই নিয়ে (মাছ ধরায় ব্যবহার হয়) ইয়াসিন হাওলাদার (২৫) ও তার বাবা হেলাল উদ্দিন হাওলাদার (৫০) শুক্রবার বরিশালের বাকেরগঞ্জের কবাই হাটে আসে। সেখানকার এক ব্যক্তি তাদের কাছ থেকে ৬০টি চাই ক্রয় করেন। এরপর ওই চাই তার বাড়িতে দিয়ে আসতে বলেন। ট্রলারসহ চাই পৌঁছে দিতে গিয়ে তারা আর ফিরে আসেনি।

জাতীয়

ঈদের আগেই শ্রমিকের বেতন-ভাতা পরিশোধ করুন: কাদের

ঈদের আগেই শ্রমিকের বেতন-ভাতা পরিশোধ করুন: কাদের

ঈদুল আজহার আগেই পোশাক শিল্পসহ অন্যান্য ক্ষেত্রে কর্মরত শ্রমিকদের বেতন-ভাতা পরিশোধের আহ্বান জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। এছাড়া কারখানা মালিকদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, শ্রমিকদের প্রতি সহমর্মিতা দেখান। মানুষের পাশে দাড়ান।

জাতীয়

বিশ্ববিদ্যালয়ে চান্স পেয়েও ভর্তি হতে না পারা ছেলেটি এখন বিসিএস ক্যাডার!

বিশ্ববিদ্যালয়ে চান্স পেয়েও ভর্তি হতে না পারা ছেলেটি এখন বিসিএস ক্যাডার!

আল আমিন (নাফিস)। ৩৮ তম বিসিএসে আনসার ক্যাডারে সুপারিশপ্রাপ্ত হয়েছেন। মেধাক্রম ৮ম। তিনি ৩৬ তম বিসিএস শিক্ষা ক্যাডারে উত্তীর্ণ হয়ে বর্তমানে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগর সরকারি কলেজে বোটানি বিভাগের প্রভাষক হিসেবে কর্মরত আছেন।

জাতীয়

বিএসএফের সঙ্গে তর্ক করায় বাংলাদেশিকে গুলি করে হত্যা

বিএসএফের সঙ্গে তর্ক করায় বাংলাদেশিকে গুলি করে হত্যা

সীমান্তে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর বেপরোয়া ভাব থামছেই না। প্রতিদিনই কোনো না কোনো বাংলাদেশীকে নির্বিচারে গুলি করে হত্যা করছে বিএসএফ। এনিয়ে বাংলাদেশ সরকারের পক্ষ্য থেকেও কোনো প্রতিক্রিয়া দেখানো হচ্ছে না। এতে করে আরও পেয়ে বসেছে বিএসএফ। সীমান্তে বেড়েই চলেছে বিএসএফের বর্বরতা।

স্বাস্থ্য

হাই ব্লাড প্রেসারে ভয়াবহ হতে পারে কোভিড সংক্রমণ

হাই ব্লাড প্রেসারে ভয়াবহ হতে পারে কোভিড সংক্রমণ

দীর্ঘদিন ধরে রক্তচাপজনিত অসুখ বা হাই ব্লাড প্রেসারের সমস্যায় ভুগছেন, এসব ব্যক্তির ক্ষেত্রে লিঙ্গ, বয়স নির্বিশেষে সংক্রমণের ঝুঁকি অনেকটাই বেশি। তাদের ক্ষেত্রে ঝুঁকি কেন বেশি, এই নিয়ে ক্লিনিক্যাল মেডিসিন জার্নালের রিসার্চ বলছে, উচ্চ রক্তচাপ মানেই রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম। তাই ভাইরাস যুদ্ধে জয়ের সম্ভাবনাও কম।