• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৯, ২ কার্তিক ১৪২৬

উন্নতির দিকে কাদের, খুলে নেয়া হবে লাইফ সাপোর্ট

উন্নতির দিকে কাদের, খুলে নেয়া হবে লাইফ সাপোর্ট

সেন্ট্রাল ডেস্ক০৬ মার্চ ২০১৯, ০৩:০৮পিএম, ঢাকা-বাংলাদেশ।

সিঙ্গাপুরের মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের শারীরিক সব প্যারামিটার ভালোর দিকে যাচ্ছে বলে জানিয়েছে মেডিকেল বোর্ড। দুই একদিনের মধ্যে তার লাইফ সাপোর্ট খুলে নেয়া হবে বলেও জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

বুধবার দুপুরে ওবায়দুল কাদেরের চিকিৎসায় গঠিত পাঁচ সদস্যের মেডিকেল বোর্ডের প্রধান ডা. ফিলিপকোহ হাসপাতালে ব্রিফকালে এ কথা জানান।

ডা. ফিলিপের বক্তব্যের আলোকে ওবায়দুল কাদেরের চিকিৎসার সর্বশেষ অবস্থা এক ভিডিও বার্তায় বাংলাদেশের গণমাধ্যমের কাছে তুলে ধরেন সিঙ্গাপুরে অবস্থানরত বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) অধ্যাপক ডা. আবু নাসির রিজভী।

আবু নাসির রিজভী জানিয়েছেন, মন্ত্রীর কিডনি ও রক্তে সংক্রমণের যে সমস্যাগুলো ছিল, তাও এখন অনেকটা নিয়ন্ত্রণে চলে এসেছে।

আবু নাসির বলেন, ‘আমরা আজকে সাড়ে ১২টার সময় সিঙ্গাপুরের মেডিকেল টিমের সঙ্গে বসেছিলাম, উই হ্যাব এ ভেরি গুড ডিসকাশন।,

‘আলহামদুলিল্লাহ, আমাদের সড়ক পরিবহনমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের সাহেবের সব প্যারামিটারসগুলো দিন দিন ভালোর দিকে যাচ্ছে। উনার কিডনি এখন খুব স্ট্যাবল আছে। ইনফেকশন অনেক কমে গেছে। ব্লাডটোন এখন ১২ হাজারে চলে এসেছে, ইউরিন আউটপুটও ভালো আছে। হার্টের কন্ডিশন,প্রেসার এবং হার্টবিট খুব ভালা আছে।’

তিনি বলেন,মেডিকেল বোর্ড আগামী দুই-এক দিনের ভিতর উনার যে আর্টিফিশিয়াল ডিভাইসগুলো আছে সেগুলো খুলে ফেলার চিন্তা করছেন। হয়তো কালকে কিছু খুলে ফেলবেন এবং আগামী শুক্রবার বাকিগুলো হয়তো খুলে ফেলা হতে পারে। এভাবে যদি প্রগ্রেস করতে থাকে হয়তো খুলে ফেলার চিন্তা-ভাবনা করছেন চিকিৎসকরা।

সংবাদ সম্মেলন শেষে আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক আবদুস সোবহান গোলাপ বলেন, বাইপাস সার্জারির বিষয়ে মেডিকেল বোর্ড এখনও কোনো সিদ্ধান্ত নেয়নি। শুক্রবারের আগে সেই সিদ্ধান্ত জানা যাবে না।

ব্রিফিংয়ের সময় ওবায়দুল কাদেরের স্ত্রী ইসরাতুন্নেসা কাদের, সিঙ্গাপুরে নিযুক্ত বাংলাদেশের হাইকমিশনার মোস্তাফিজুর রহমান, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ, গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র জাহাঙ্গীর আলম, নোয়াখালী জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক একরামুল করিম চৌধুরী এমপি, ফেনী জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নিজাম উদ্দীন হাজারী এমপি প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

গত ৪ মার্চ বিএসএমএমইউ হাসপাতালের সিসিইউতে চিকিৎসাধীন ওবায়দুল কাদেকে পর্যবেক্ষণের পর উন্নত চিকিৎসার জন্য দেশের বাইরে নেয়ার পরামর্শ দেন ভারতের প্রখ্যাত হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ দেবী শেঠি। ওইদিন বিকাল মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালের একটি এয়ার এম্বুলেন্সে তাকে সিঙ্গাপুরে নেয়া হয়।

 

টাইমস/এসআই

পদ্মা সেতুর ৮৪ শতাংশ কাজ সম্পন্ন: ওবায়দুল কাদের

পদ্মা সেতুর ৮৪ শতাংশ কাজ সম্পন্ন: ওবায়দুল কাদের

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, পদ্মা সেতুর বাস্তব...

বাংলাদেশের ফুটবলের উন্নয়নে পাশে থাকবে ফিফা

বাংলাদেশের ফুটবলের উন্নয়নে পাশে থাকবে ফিফা

বাংলাদেশ সফরে এসে ফেডারেশন ইন্টারন্যাশনাল ডি ফুটবল অ্যাসোসিয়েশন (ফিফা)’র সভাপতি...

গ্রামীণফোনের কাছে বিটিআরসির পাওনা আদায়ে হাইকোর্টের নিষেধাজ্ঞা

গ্রামীণফোনের কাছে বিটিআরসির পাওনা আদায়ে হাইকোর্টের নিষেধাজ্ঞা

মোবাইল অপারেটর কোম্পানি গ্রামীণফোনের কাছে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশনের (বিটিআরসি)...

জাতীয়

বাচ্চুর বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নেয়া উচিত: অ্যাটর্নি জেনারেল

বাচ্চুর বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নেয়া উচিত: অ্যাটর্নি জেনারেল

বেসিক ব্যাংক কেলেঙ্কারির ঘটনায় ব্যাংকটির সাবেক চেয়ারম্যান শেখ আব্দুল হাই বাচ্চুর বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা নেয়া উচিত বলে মনে করেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম। বৃহস্পতিবার বিকালে তিনি এ কথা বলেন। মাহবুবে আলম বলেন, নানা রকম ক্ষতির সম্মুখীন হলে এই ব্যাংক পরিচালনায় যারা থাকে তারা সবাই দায়ী হতে বাধ্য। তার কারণ অলৌকিক কারণে ব্যাংকটি বসে যায়নি। দুদকের ভিতরে সবাই সাধু বসে আছে এটা বলার কারণ নাই।

জাতীয়

মুসা বিন শমসেরের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

মুসা বিন শমসেরের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

জালিয়াতি করে গাড়ি নিবন্ধনের অভিযোগে বিতর্কিত ব্যবসায়ী মুসা বিন শমসেরের বিরুদ্ধে মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। বৃহস্পতিবার দুদকের সমন্বিত জেলা কার্যালয়, ঢাকা-১ এর পরিচালক মীর মো. জয়নুল আবেদীন বাদী হয়ে মামলাটি করেন। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ, ‘কার্নেট ডি প্যাসেজ’ সুবিধায় আনা গাড়ি জালিয়াতির মাধ্যমে নিবন্ধন করে তিনি ব্যবহার করছেন।

জাতীয়

খাসিয়া নারী হস্তান্তর, বাংলাদেশী যুবকসহ গরু ফেরত দিয়েছে ভারত

খাসিয়া নারী হস্তান্তর, বাংলাদেশী যুবকসহ গরু ফেরত দিয়েছে ভারত

সিলেটের জৈন্তাপুর সীমান্তে বিজিবি-বিএসএফের পতাকা বৈঠকের মাধ্যমে ভারতীয় খাসিয়া নারীকে হস্তান্তরের পর এক বাংলাদেশী যুবকসহ শতাধিক গরু ফেরত দিয়েছে ভারতীয় খাসিয়ারা।

রাজনীতি

সমাজটা অমানবিক হয়ে যাচ্ছে: মেনন

সমাজটা অমানবিক হয়ে যাচ্ছে: মেনন

বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি রাশেদ খান মেনন বলেছেন, আমাদের সমাজটা অমানবিক হয়ে যাচ্ছে। এর ফলে আগামী ভবিষ্যৎ যে কী দাঁড়াবে, তা নিয়ে আমরা সবাই চিন্তিত। অর্থনৈতিক উন্নয়নকে কেন্দ্র করে সমস্যাগুলো ক্রমশ বেড়েই চলেছে। বৃহস্পতিবার সকালে রাজধানীর শাহবাগে জাতীয় গণগ্রন্থাগারের সেমিনার হলে মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক ও সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলনের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি অজয় রায়ের তৃতীয় মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে এ কথা বলেন মেনন।

জাতীয়

পুলিশের ভুলের বলি বাবলু শেখ, ১৭ বছর আদালতে চক্কর

পুলিশের ভুলের বলি বাবলু শেখ, ১৭ বছর আদালতে চক্কর

২০০১ সালের ১৫ এপ্রিল নাটোর সদর উপজেলার গাঙ্গইল গ্রামের কাজী আবদুল মালেকের সঙ্গে শ্রী বাবুসহ ছয়জনের মারামারির ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় মালেক বাদী হয়ে শ্রী বাবুসহ ছয়জনের বিরুদ্ধে নাটোর থানায় মামলা করেন। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা আসামি শ্রী বাবুকে গ্রেপ্তার না করে সিংড়া উপজেলার আঁচলকোট গ্রামের বাবলু শেখকে ২০০২ সালের ৭ নভেম্বর গ্রেপ্তার করে নাটোর সদর আমলি আদালতে পাঠান। ভুলের বিষয়টি আদালতকে অবহিত না করে ছয় দিন পর ১৩ নভেম্বর আসামির আইনজীবী শ্রী বাবু পরিচয়েই বাবলু শেখের জামিন করান। পরে ওই পরিচয়েই বাবলু শেখের বিরুদ্ধে আদালত অভিযোগ গঠন ও সাক্ষ্য গ্রহণ করেন। যুক্তিতর্ক শেষে ২০১৬ সালের ২৩ জুন মুখ্য বিচারিক হাকিম মুহাম্মদ হাবিবুর রহমান সিদ্দিকী আসামি বাবুকে দুই বছর সশ্রম কারাদণ্ড এবং পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরও তিন মাসের সশ্রম কারাদণ্ডাদেশ দেন। ওই দিন কাঠগড়া থেকে বাবলু শেখকে কারাগারে পাঠিয়ে দেয়া হয়। পরে জেলা ও দায়রা জজ আদালতে ওই রায়ের বিরুদ্ধে বাবলু শেখ আপিল করেন। আদালত তাকে শুনানি না হওয়া পর্যন্ত জামিন দেন।

স্বাস্থ্য

রোগ-ব্যধির যম তুলসী

রোগ-ব্যধির যম তুলসী

তুলসী সবুজ রঙের গুল্মজাতীয় উদ্ভিদ। এর পাতা, বীজ, ডালপালা সবই মানুষের উপকারে লাগে। শীতে সর্দি, কাশি, নাক দিয়ে পানি পড়া, জ্বরজ্বর ভাব দূর করার জন্য তুলসী পাতার রস ভীষণ উপকারী। এমনকি এই রস দেহে ইনসুলিন উৎপাদনের মাত্রা বৃদ্ধির সঙ্গে রক্তে চিনির পরিমাণ কমিয়ে দেয়।