• ঢাকা, বাংলাদেশ
  • বুধবার, ০৩ জুন ২০২০, ১৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭
জেনে নিন, যেসব অ্যামিনো অ্যাসিড ঘুমাতে সহায়তা করে

জেনে নিন, যেসব অ্যামিনো অ্যাসিড ঘুমাতে সহায়তা করে

অ্যামিনো অ্যাসিডকে প্রোটিন সমূহের মূল ভিত্তি হিসেবে উল্লেখ করা হয়, যা প্রোটিন গঠনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। চুল, হাড়, কার্টিলেজ, এনজাইম প্রভৃতি তৈরি করতে দেহের প্রায় বিশ ধরণের অ্যামিনো অ্যাসিডের প্রয়োজন হয়। বিশ ধরণের অ্যামিনো অ্যাসিডের মধ্যে নয়টিকে আমাদের দেহের জন্য অতি প্রয়োজনীয় অ্যামিনো অ্যাসিড হিসেবে চিহ্নিত করা হয়ে থাকে। এই অ্যামিনো অ্যাসিডের সবগুলি আমাদের দেহ নিজে থেকে উৎপাদন করতে পারে না, ফলে খাবারের মাধ্যমে তা সরবরাহ করার প্রয়োজন পড়ে। মাংস পেশির বৃদ্ধি ঘটানো ছাড়াও নির্দিষ্ট কিছু অ্যামিনো অ্যাসিড আমাদেরকে ঘুমাতে সহায়তা করে বলে পুষ্টিবিদরা মনে করেন।

বিস্তারিত
করোনার আক্রমণস্থল ফুসফুসের যত্ন নিন

করোনার আক্রমণস্থল ফুসফুসের যত্ন নিন

করোনাভাইরাস মহামারীতে অচল গোটা বিশ্ব। হু হু করে বাড়ছে আক্রান্ত রোগী ও মৃতের সংখ্যা। এই অবস্থায় করোনার প্রাদুর্ভাব ঠেকাতে এর উৎস, বিস্তার ও প্রতিরোধ নিয়ে বিভিন্ন দেশের বিশেষজ্ঞরা গবেষণা চালিয়ে যাচ্ছেন। এই ভাইরাসের মূল আক্রমণস্থল হচ্ছে- ফুসফুস। ভাইরাসটি নাক বা মুখ দিয়ে ভেতরে প্রবেশ করে ফুসফুসের স্বাভাবিক কার্যক্রমে ব্যাঘাত ঘটায়। ফলে ধীরে ধীরে এর কার্যক্ষমতা নষ্ট করে রোগীকে শ্বাসকষ্ট, নিউমোনিয়া ইত্যাদি জটিলতা, এমনকি মৃত্যুর মুখে ঠেলে দেয়। তাই ফুসফুসের যত্ন নেয়া জরুরী। কী করে যত্ন নেবেন পুষ্টিবিদ বিভিন্ন নির্দেশনা দিয়ে থাকেন।

বিস্তারিত
করোনাভাইরাস: ডায়াবেটিস রোগীদের প্রয়োজন বিশেষ সতর্কতা

করোনাভাইরাস: ডায়াবেটিস রোগীদের প্রয়োজন বিশেষ সতর্কতা

সবাইকেই করোনাভাইরাস থেকে বেঁচে থাকতে সাবধানতা অবলম্বন করতে হবে। কিন্তু আপনার যদি ডায়াবেটিস থেকে থাকে তাহলে প্রয়োজন বাড়তি সতর্কতার। ডায়াবেটিসে আক্রান্ত হিসেবে আপনার করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হবার ঝুঁকি অন্যদের তুলনায় বেশি নয়। তবে আপনার যদি ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে না থাকে, তাহলে কোনোভাবে আক্রান্ত হয়ে গেলে তা জটিল আকার ধারণ করার সম্ভাবনা প্রবল।

বিস্তারিত
এসি থেকেও ছড়াতে পারে করোনা

এসি থেকেও ছড়াতে পারে করোনা

বর্ষপঞ্জির হিসাবে শীত বিদায় নিয়েছে। চলছে বসন্ত। প্রকৃতিতে গরমের আবহ শুরু হয়ে গেছে। এদিকে, প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের হানা যেন থামছে না। হর হামেশাই মৃত্যুর মিছিলে যুক্ত হচ্ছে হাজার হাজার মানুষ। ফলে ভাইরাস মোকাবেলায় এই গরমে গৃহবন্দি হয়ে পড়েছেন মানুষ। আর এই গরমে গৃহবন্দি অবস্থায় একটু স্বস্তিতে থাকতে এসি (এয়ার কন্ডিশনার) ছাড়বেন! তবে, একটু ভেবে নিন।

বিস্তারিত
করোনাভাইরাস: ভ্যাপিং ও ধূমপায়ীদের যা জানা দরকার

করোনাভাইরাস: ভ্যাপিং ও ধূমপায়ীদের যা জানা দরকার

কোভিড-১৯ আক্রান্তের সংখ্যা দিন দিন বেড়ে চলার ফলে গবেষকরা পরামর্শ দিচ্ছেন- ধূমপান কিংবা ভ্যাপিং থেকে বিরত থাকতে। কারণ, ধূমপায়ী কিংবা ভ্যাপিং ব্যবহারকারী কোভিড-১৯ রোগটিতে আক্রান্ত হলে তা থেকে মারাত্মক জটিলতার সৃষ্টি হতে পারে, এমনকি আক্রান্ত ব্যক্তির মৃত্যুঝুঁকিও সৃষ্টি হয়। বিভিন্ন গবেষণা বলছে, ধূমপান ছেড়ে দিলে কোভিড-১৯ ঝুঁকি হ্রাস হয়। এর ফলে ধূমপায়ী ও ভ্যাপিং ব্যবহারকারীদের অনেকেই তাদের এই অভ্যাস ছেড়ে দেয়ার চেষ্টা করছেন।

বিস্তারিত
করোনায় ক্যান্সার রোগীদের করণীয়

করোনায় ক্যান্সার রোগীদের করণীয়

বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাসে প্রাণহানির সংখ্যা ৯০ হাজার ছাড়িয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের জনস হপকিন্স ইউনিভার্সিটির তথ্য অনুযায়ী, বৃহস্পতিবার রাত ১১টা পর্যন্ত এই সংখ্যা ৯০ হাজার ৫৭ জন। এই সময় পর্যন্ত শনাক্ত হওয়া রোগীর সংখ্যা ১৫ লাখের বেশি। প্রাণহানিতে শীর্ষে অবস্থান করছে ইউরোপের কয়েকটি দেশ। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মতে, সব বয়সীরাই এই করোনাভাইরাসের সংক্রমণের ঝুঁকিতে রয়েছেন। তবে যাদের রোগ প্রতিরোধক্ষমতা কম, এমন ব্যক্তিরা বেশি ঝুঁকিতে রয়েছেন। বিভিন্ন রোগব্যাধির মধ্যে ক্যান্সার মানুষের শরীরের রোগ প্রতিরোধক্ষমতা কমিয়ে দেয়। তবে সব ক্যান্সার রোগী সমান ঝুঁকিপূর্ণ নয়।

বিস্তারিত
করোনাভাইরাস : অ্যাজমা রোগীদের যা জানা প্রয়োজন

করোনাভাইরাস : অ্যাজমা রোগীদের যা জানা প্রয়োজন

নোভেল করোনাভাইরাসের ফলে সৃষ্ট কোভিড-১৯ রোগটির অন্যতম প্রধান উপসর্গ হলো- কফ ও শ্বাসকষ্ট। সাধারণ ঠাণ্ডা বা ইনফ্লুয়েঞ্জার মতোই কোভিড-১৯ আক্রান্ত ব্যক্তির শ্বাসযন্ত্রে সংক্রমণ ঘটায়, শ্বাসকষ্ট দেখা দেয় এবং অনেক সময় কৃত্রিম শ্বাসপ্রশ্বাস গ্রহণের প্রয়োজন পড়ে। ফলে যাদের অ্যাজমা বা শ্বাসকষ্টের সমস্যা রয়েছে, রোগটি তাদের জন্য মারাত্মক হুমকি হয়ে উঠতে পারে। বিভিন্ন গবেষণা বলছে, যাদের ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপ কিংবা অ্যাজমার মতো দুরারোগ্য ব্যাধি রয়েছে, কোভিড-১৯তে আক্রান্ত হলে তাদের ঝুঁকি অন্যদের তুলনায় বেশি। তবে রোগটি অ্যাজমা রোগীদেরকে কিভাবে প্রভাবিত করবে কিংবা আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি বাড়ায় কিনা, সে বিষয়ে সুনির্দিষ্ট তথ্য এখনো পাওয়া যায়নি।

বিস্তারিত
করোনায় আক্রান্তদের মধ্যে যাদের ভেন্টিলেটর প্রয়োজন

করোনায় আক্রান্তদের মধ্যে যাদের ভেন্টিলেটর প্রয়োজন

বিশ্বব্যাপী মহামারি আকারে ছড়িয়ে পড়েছে করোনাভাইরাস। প্রতিদিন মানুষের মৃত্যুর ঘটনা ঘটছে। রাশ টানা যাচ্ছে না এ মহামারির। সাধারণত শুষ্ক কাশি ও জ্বরের মাধ্যমেই শুরু হয় করোনাভাইরাসের উপসর্গ, পরে শ্বাস প্রশ্বাসে সমস্যা দেখা দেয়। এই ভাইরাস জনিত কোভিড-১৯ রোগে আক্রান্তদের ভেন্টিলেটরের (কৃত্রিমভাবে স্বাস্থ্য প্রশ্বাস নেয়ার যন্ত্র) মাধ্যমে চিকিৎসা দেয়ার কথা বলছেন চিকিৎসকরা। চিকিৎসকদের মতে, যেসব রোগীর শ্বাস-প্রশ্বাসে সমস্যা হয়, গলাব্যথা, নিউনোমিয়ার প্রকোপ বেড়ে যায়, রোগীর জীবন যখন সংকটাপন্ন হয়ে পড়ে, তখন তার জন্য ভেন্টিলেটর ব্যবহার করা জরুরি।

বিস্তারিত
হৃদপিণ্ডের স্বাস্থ্য রক্ষায় অলিভ ওয়েল

হৃদপিণ্ডের স্বাস্থ্য রক্ষায় অলিভ ওয়েল

প্রতিদিনের খাদ্যাভ্যাসে অলিভ ওয়েল কিংবা ভেজিটেবল ওয়েল যুক্ত হলে তা সুস্থ রাখবে আপনার হৃদপিণ্ডটিকে। নতুন একটি গবেষণায় পাওয়া তথ্য অনুযায়ী প্রতিদিন গড়ে এক চামচ অলিভ ওয়েল খেলে তা হৃদপিণ্ডের স্বাস্থ্য বজায় রাখতে সহায়তা করবে। গবেষকরা মার্চের প্রথম সপ্তাহে আমেরিকান হার্ট অ্যাসোসিয়েশন আয়োজিত লাইফস্টাইল অ্যান্ড কার্ডিওমেটাবোলিক হেলথ সেশনে তাদের গবেষণালব্ধ এসব তথ্য তুলে ধরেন। ১৯৯০ সাল থেকে দীর্ঘ সময় ধরে গবেষকরা এসব বিষয়ে তথ্য উপাত্ত সংগ্রহ করেছেন।

বিস্তারিত
চোখের মাধ্যমে যেভাবে করোনা আক্রমণ করে

চোখের মাধ্যমে যেভাবে করোনা আক্রমণ করে

করোনাভাইরাসের কারণে এখন সারা বিশ্বে আতঙ্ক বিরাজ করছে। এই ভাইরাসজনিত কোভিড-১৯ রোগের গতি প্রকৃতি নিয়েও চলছে নানা গবেষণা। সংক্রামক রোগ বিশেষজ্ঞদের মতে, এই ভাইরাসে আক্রান্ত ব্যক্তির হাঁচি-কাশির ড্রপলেট বায়ুতে ঘুরে বেড়ায়। এই ড্রপলেট রোগীর কাছাকাছি থাকা সুস্থ মানুষের নাক, মুখ ও চোখের মাধ্যমে তার শরীরে প্রবেশ করে।

বিস্তারিত